মোঃ রজব আলী ফুলবাড়ী (দিনাজপুর) প্রতিনিধিঃ আর কয়েকদিন পরেই পবিত্র ঈদুল ফিতর। ঈদ মানে নতুন বাহারী পোষাক, নতুন জুতা সেন্টেল, এই জন্য সারা দেশের ন্যায় দিনাজপুরের ফুলবাড়ী উপজেলাতেও শুরু হয়েছে ঈদের কেনা-কাটা। ঈদকে সামনে রেখে তৈরী পেষাকের দোকানে উপচেপড়া ভিড় জমেছে। শহরের অভিযাত বিপনী গুলোর পাশা-পাশি ফুটপথের দোকান গুলোতেও ব্যাপক ভিড় দেখা গেছে।

ব্যবসায়ীরা জানান অনান্য বছরের তুলুনায় এই বছর বেচা-কেনা বেশি হচ্ছে। ব্যবসায়ীরা বলছেন, অনান্য বছর শুধু ব্যবসায়ী ও চাকুরীজিবী পরিবারগুলো কেনা কাটা করতো, এই বছর ঈদের কেনা-কাটা শুরু হওয়ার পুর্বে কৃষদের বোরোধান কাটা-মাড়া শেষ হয়েছে।

এই জন্য ব্যবসায়ী ও চাকুরীজিবীদের পাশা-পাশি কৃষক পরিবারগুলো ঈদের কেনা-টাকা করছে, এতে করে অনান্য বছরের তুলুনায় এই বছর বেচা-কেনা বৃদ্ধি পেয়েছে, সুধু তাই নয়, কৃষি মজুরেরাও কেনা কাটা করছে, এই জন্য অভিযাত বিপনী গুলোর পাশা-পাশি ফুটপথের কোনান গুলোতেও বেচা-কেনা বেড়েছে।

এদিকে তৈরী পোষাকের পাশা-পাশি পাদুকা- প্রসাধনীর বেচা-কেনাও বৃদ্ধি পেছে।

ঈদের বাজার করতে আসা কয়েকজন কৃষক এই প্রতিবেককে বলেন, গত কয়েক বছর পরিবারের চাহিতা তেমন পুরন করা যায়নি, ধানের অগ্রিম টাকা নিয়ে অথবা ঋন নিয়ে ঈদের কেনা কেটা করতে হয়েছে, এই বার যেহেতু ঘরে ধান আসছে, তাই পরিবারের সকলের জন্য কেনা কাটা করছেন।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য