মোঃ জাকির হোসেন, সৈয়দপুর (নীলফামারী) থেকেঃ নীলফামারীর সৈয়দপুর পৌরসভার মেয়র মোঃ আমজাদ হোসেন সরকার। তিনি সন্ত্রাসের গড ফাদার। তিনি বর্তমান সরকারের ভাবমূর্তি ও বিভিন্ন উন্নয়ন কর্মকান্ডকে বাধাগ্রস্ত করতে অপপ্রয়াসে লিপ্ত।নিজ মালিকানায় প্রকাশিত সাপ্তাহিক ‘দাগ’ পত্রিকার মাধ্যমে তিনি একটি মিশন সফল করার চেষ্টা করছেন।

৪ জুন সোমবার দুপুরে বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ সৈয়দপুর উপজেলা ও পৌর শাখার যৌথ উদ্যোগে দলীয় কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত এক সংবাদ সম্মেলনে আ’লীগ নেতৃবৃন্দরা এ অভিযোগ করেন।

ওই সাংবাদিক সম্মেলনে সাবেক পৌর মেয়র ও উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক আখতার হোসেন বাদলের পক্ষে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন সৈয়দপুর পৌর আওয়ামীলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি রফিকুল ইসলাম বাবু।

এ ছাড়াও উপস্থিত ছিলেন উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও রেলওয়ে শ্রমিকলীগের কেন্দ্রীয় নেতা মোঃ মোখছেদুল মোমিন, উপজেলা আওয়ামীলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি আব্দুস সামাদ মন্ডল, পৌর আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক মোজাম্মেল হক, আওয়ামীলীগ নেতা ও সৈয়দপুর কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ সাখাওয়াত হোসেন খোকন সহ আওয়ামীলীগ, যুবলীগ, ছাত্রলীগ, কৃষকলীগের নেতৃবৃন্দ।

লিখিত বক্তব্যে আরো বলা হয়, বিএনপি দলীয় পৌর মেয়র তত্ত্বাবধায়ক সরকারের আমলে দূর্নীতি, হত্যা ও হত্যার প্ররোচনার মামলায় হাজতবাস করেছেন। বক্তব্যে হুশিয়ারী উচ্চারন করে বলা হয়, পৌর মেয়রের সকল দূর্ণীতি, স্বেচ্ছাচারিতা, লুটপাটের বিষয় জনসম্মুর্খ প্রকাশ করা হবে। এছাড়া ‘দাগ’ পত্রিকাটির প্রকাশনা বাতিলের জন্য প্রশাসনের কাছে দাবি জানানো হয়।

সংবাদ সম্মেলনে শহরের পাঁচমাথা মোড় কে ‘বঙ্গবন্ধু চত্ত্বর’ এবং আদর্শ বালিকা উচচ বিদ্যালয় ও কলেজের সামনের সড়কটিকে ‘শেখ রাসেল’ সড়ক নামকরণের দাবি জানানো হয়।

উল্লেখ্য যে, সম্প্রতি আমজাদ হোসেন সরকার সম্পাদিত সাপ্তাহিক পত্রিকা ‘দাগ’-এ পরপর দুটি সংখ্যায় সাবেক পৌর মেয়র, আ’লীগ নেতা আখতার হোসেন বাদলকে জড়িয়ে মানহানিকর সংবাদ প্রকাশিত করার প্রতিবাদে এ সংবাদ সম্মেলন করে স্থানীয় আওয়ামীলীগ।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য