কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ীতে অস্ত্র ও মাদক মামলার আসামীসহ সীমান্তে অবৈধ অনু-প্রবেশের দায়ে পুলিশ ও বিজিবি এক কলেজ ছাত্রসহ ৪ জনকে আটক করে। গতকাল শনিবার দিবাগত রাতে তাদেরকে আটক করা হয়েছে।

বিজিবি জানায়, উপজেলার কুরুষাপেরুষা সীমান্তের বালারহাট ক্যাম্পের বিজিবি’র সদস্যরা সীমান্তের আন্তজার্তিক পিলার নং ৯৩৫/৬ এর নিকট থেকে একটি ভারতীয় সিম কার্ডসহ উপজেলার খলিশাকোটাল গ্রামের মোজাম্মেল হকের ছেলে ও ডিগ্রী ২য় বর্ষের ছাত্র রবিউল ইসলাম (২৫)কে আটক করেন।

অপর দিকে ফুলবাড়ী থানার পুলিশ পৃথক অভিযান চালিয়ে অস্ত্র ও মাদক মামলার সাজাপ্রাপ্ত আসামীসহ দুই মাদক ব্যবসায়ীতে আটক করে। তিনি উপজেলার শিমুলবাড়ী গ্রামের মৃত আব্দুল হাকিমের ছেলে তৈয়ব আলী (৫৫)। সোনাইকাজী গ্রামের মৃত কান্দুরা মামুদের ছেলে মুক্তা মিয়ার বাড়ী থেকে দুই মাদক ব্যবসায়ীকে আটক করে পুলিশ।

তারা হলেন পাবনা জেলার ঈশ্বরদী থানার আওতা পাড়া গ্রামের ইউনুস আলীর ছেলে অস্ত্র মামলার আসামী জিয়াউল হক (৩৫)। একই থানার রুপপুর গ্রামের মৃত মোজাম্মেল হকের ছেলে জালাল উদ্দিন (৩৮)। ফুলবাড়ী থানার পুলিশ এই তিনজনকে রোববার কুড়িগ্রাম জেল হাজতে প্রেরণ করেছে।

এ ব্যাপারে ফুলবাড়ী থানার ডেউটি অফিসার এ এস আই আব্দুল রকিব ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান,আটক জিয়াউল হকের বিরুদ্ধে ঈশ্বরদী থানায় দুইটি অস্ত্র মামলা রয়েছে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য