মোঃ রজব আলী ফুলবাড়ী থেকেঃ দিনাজপুর জেলার ফুলবাড়ী ও পার্বতীপুর উপজেলা নিয়ে গঠিত দিনাজপুর-৫ আসনে। আগামী একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে মাঠে নেমেছেন ক্ষমতাশীন দল আওয়ামীলীগের একাধিক মনোনয়ন প্রত্যাশী। সেখানে রাজপথের প্রধান বিরোধি দর বিএনপির প্রাথী হিসেবে এক জনের নামেই বলছেন নেতা-কর্মিরা।

এই আসনে বর্তমান সংসদ সদস্য সরকারের প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রী ও জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি এ্যাডভোকেট মোস্তাফিজুর রহমান ফিজার এমপি। তিনি গত ছয় বার এই আসন থেকে আওয়ামীলীগের মনোনিত প্রার্থী হিসেবে নির্বাচিত হয়ে আসছেন, এবং আওয়ামীলীগের একক প্রার্থী ছিলেন, কিন্তু এইবার তার ঘরেই দেখা দিয়েছে একাধিক মনোনয়ন প্রতিদন্দি, ইতিমধ্যে মনোনয়ন পাওয়ার জন্য মাঠে নেমেছেন আরো তিন জন মনোনয়ন প্রত্যাশী, তারা সাধারন ভোটার ও দলিয় নেতাকর্মিদের সমর্থন পেতে শুরু করেছেন গণসংযোগ, সভা সেমিনার ও সামাজিক কাজ কর্ম।

এদিকে এখনো মাঠে সক্রিয় ভুমিকা দেখা যাচ্ছে না, রাজপথের প্রধান বিরোধীদল বিএনপির, তবে দলিয় নেতাকর্মিরা বলছেন এই আসনের একমাত্র প্রার্থী, জেলা বিএনপির আহবায়ক এজেডএম রেজওয়ানুল হক, তবে বিকল্প প্রার্থী হিসেবে, ফুলবাড়ী উপজেলা বিএনপির সভাপতি ও উপজেলা চেয়ারম্যান অধ্যক্ষ খুশিদ আলম মতির নামও বলছেন অনেকে। বিএনপির দলিয় নেতা কর্মিরা বলছেন, আগামী একাদশ জাতীয় নির্বাচন কিভাবে অনুষ্ঠিত হবে এটিই বড় বিষয়, দলের কেন্দ্রিয় কমিটি নির্বাচনে অংশ নেয়ার ঘোষনা দিলে তারা কোমর বেধে মাঠে নামবেন।

আগামী একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে, ক্ষমতাশীন দল আওয়ামীলীগের বর্তমান সংসদ সদস্য ও সরকারের প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রী এ্যাডভোকেট মোস্তাফিজুর রহমান ফিজার এমপির’র মনোনয়ন প্রতিদন্দি হিসেবে মাঠে নেমেছেন, দিনাজপুর জেলা সেচ্ছাসেবকলীগের সাধারন সম্পাদক জাকারিয়া জাকির,আওয়ামী যুবলীগের কেন্দ্রিয় কমিটির সদস্য সফেদ আশফাক তুহিন, পার্বতীপুর উপজেলার আওয়ামীলীগ নেতা মাহামুদুনুন্নবী চৌধুরী, এছাড়া সাবেক সংসদ সদস্য এ্যাভোকেট সরদার মোশারফ হোসেন এর ছেলে রাসেল এর কথাও ভেষে বেড়াচ্ছে, তবে তাকে মাঠে দেখা যাচ্ছে না।

ক্ষমতাশীন দল আওয়ামীলীগের একাধিক মনোনয়ন প্রত্যাশিরা সামাজিক কর্ম কান্ড করাসহ, করছেন গলসংযোগ কর্মিসভা ও জনসভা সেমিনার করছেন, সেই সাথে বর্তমান সংসদ সদস্য ও সরকারের প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রী এ্যাডভোকেট মোস্তাফিজুর রহমান ফিজার দির্ঘ ছয় বার সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়ে, নেতা কর্মিদের কতটুকু মুল্যায়ন করেছেন ও তার দির্ঘ সময়ের বিভিন্ন কাজের সফলতা ও ব্যার্থতার হিসেব নিকেশ দলিয় নেতা কর্মিদের সামনে তুলে ধরে সরব হয়েছেন।

এই বিষয়ে ফুলবাড়ী উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক মুশফিকুর রহমান বাবুল এর সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, এই অঞ্চলের মাটি মানুষের নেতা সরকারের প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রী এ্যাডভোকেট মোস্তাফিজুর রহমান ফিজার এমপি। তিনি এই আসন থেকে লাগাতার ছয় বার নির্বাচিত হয়েছেন, এখনো তার নেতৃত্বে ঐক্যবন্ধ এই অঞ্চলের মানুষ ও নেতা-কমিরা, তাই এই আসনে মোস্তাফিজুর রহমান ফিজার এর বিকল্প নাই । এদিকে আওয়ামীলীগের প্রবীন নেতা কর্মিরা বলছেন বর্তমান সাংসদ মন্ত্রী হওয়ার পর থেকে ত্যাগী নেতা কর্মিদের দুরে রেখে নবীন ও নব্য নেতাদের সামনে এনেছেন, দলের ত্যাগী নেতা কর্মিদের মূল্যায়ন না হওয়ায় তাদের মাঝে ক্ষোভ বিরাজ করছে। একই ভাবে গত ২০০৮ সাল থেকে দল ঠানা ক্ষমতায় থাকার পরেও নেতা কর্মিদের প্রত্যাশা অনুযায়ী প্রাপ্তি মিলে নাই, এতেও নেতা কর্মিদের মধ্যে চাপা ক্ষোভ বিরাজ করছে, এই অবস্থায় আগামী একাদশ জাতীয় নির্বাচনে কঠিন অবস্থার মুখোমুখি হতে পাবে বর্তমান সাংসদ ও সরকারের প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রীকে।

ুুুুুুুুুতবে বর্তমান সংসদ সদস্যর বিষয়ে একেবারে নিশক্রিয় ভুমিকায় আছেন, রাজপথের প্রধান বিরোধীদল বিএনপি। বিএনপির নেতা কর্মিরা মাঝে মধ্যে দলিয় সভা করলেও, তারা বর্তমান সংসদ সদস্যর সফলতা ও ব্যর্থতার বিষয়ে একবারে নিশচুপ। বিএনপির নেতা কর্মিরা মনে করছেন জাতীয় রাজনীতীতে বিএনপি জয়লাভ করলেই তারা জয় পাবে। ফুলবাড়ী উপজেলা বিএনপির সভাপতি ও উপজেলা চেয়ারম্যান অধ্যক্ষ খুরশিদ আলম মতি বলেন, আগামী একাদশ জাতীয় নির্বাচন নিরপেক্ষ সহায়ক সরকারের অধিনে অনুষ্ঠিত হলে বিএনপি সহজে জয়লাভ করবে। কিন্তু একাদশ জাতীয় নির্বাচন কিভাবে হবে সে বিসযটি এখন বড় বিষয়।

অপরদিকে জাতীয় পাটি (জাপা) এর মনোনয়ন প্রত্যাশা করছেন জাতীয় পাটির তরুন নেতা সোলায়মন সামি। তিনি মাঝে মধ্যেই একাদশ জাতীয় নির্বাচন নিয়ে নেতাকর্মিদের সাথে যোগাযোগ অব্যহত রেখেছেন।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য