দিনাজপুর সংবাদাতাঃ ৫ দফা দাবীতে গন-পদযাত্রা কর্মসুচী পালন করেছে বাংলাদেশ সাধারন ছাত্র অধিকার সংরক্ষন পরিষদ দিনাজপুর সরকারী কলেজ জেলা শাখা।

রবিবার বিকেলে কেন্দ্র ঘোষিত কর্মসুচীর অংশ হিসেবে ৫ দফা বাস্তবায়নের দাবীতে বাংলাদেশ সাধারন ছাত্র অধিকার সংরক্ষন পরিষদ দিনাজপুর সরকারী কলেজ শাখার নব গঠিত পরিষদের নেতাকর্মীরা গন-পদযাত্রা কর্মসুচী পালন করে।

এসময় সরকারী কলেজের বিভিন্ন বিভাগের শিক্ষার্থীদের সমন্বয়ে সরকারী কলেজের প্রধান গেট থেকে “ বঙ্গবুন্ধুর বাংলায় বৈষম্যে ঠাই নাই,কোঠা ব্যবস্থার সংস্কার চাই”শ্লোগান নিয়ে গন-পদযাত্রা শুরু হয়। গন-পদযাত্রাটি শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদিক্ষন শেষে আবোরো কলেজ ক্যাম্পাসে ফিরে গিয়ে কলেজের প্রধান গেটে তারা সংক্ষিপ্ত সমাবেশ করে।

আয়োজিত সংক্ষিপ্ত সমাবেশে তারা বলেন,সরকারী চাকুরীসহ অন্যান্য ক্ষেত্রে প্রচলিত পন্থায় কোঠা পদ্ধতি চালুর মাধ্যমে মেধার বিকাশকে রুদ্ধ করা হয়েছে। তারা বলেন,যদি কোঠা পদ্ধতি রাখতেই তবে সর্ব্বোচ্চ ১০% বেশী নয়। চাকুরীসহ সর্বক্ষেত্রে কোঠা নয় শিক্ষার্থীদের মেধার বিকাশ ঘটিয়ে সর্বক্ষেত্রেই প্রতিযোগীতামুলক ব্যবস্থার মাধ্যমে নিয়োগ ব্যবস্থা চালু করতে হবে।

শিক্ষার্থীদের ৫ দফা দাবীর মধ্যে রয়েছে,কোঠা ব্যবস্থা সংস্কার করে ৫৬% থেকে ১০%,চাকুরীতে প্রবেশের ক্ষেত্রে সবার জন্য অভিন্ন বয়সসীমা নির্ধারন,চাকুরী নিয়োগ পরিক্ষায় কোঠা সুবিধা একাধিকবার নয়,কোঠায় কোন ধরনের বিশেষ নিয়োগ পরিক্ষা নয় ও কোঠায় যোগ্য প্রার্থী না পাওয়া গেলে শুন্যপদ গুলোতে মেধার ভিক্তিতে নিয়োগ দিতে হবে।

দিনাজপুর সরকারী কলেজ বাংলা বিভাগের ৪র্থ বর্ষেও ছাত্র মোঃ রাসেদুল কবীর(রাসেদ)কে আহ্বায়ক ও মোঃ আয়নাল হোসেন(রাষ্ট বিজ্ঞান),সাব্বির জামান(সমাজ বিজ্ঞান),ইমরান আলী(গনিত),শামীম রেজা(গনিত),হাবিব(গনিত বিভাগ),রকি(ব্যবস্থাপনা বিভাগ),আলমগীর (সমাজবিজ্ঞান বিভাগ),হাসনাত(বাংলা বিভাগ),সাব্বির(ইতিহাস),মনিরুজ্জামান,(সমাজ বিজ্ঞান বিভাগ),নুর নবী(ব্যবস্থাপনা বিভাগ),রেজাউল ইসলাম(বাংলা বিভাগ),আবদুল্লাহ(বাংলা বিভাগ),হালিমুর(ইতিহাস),যুগ্ম আহবায়ক এবং মোঃ সায়েদ ইসলাম সুজন,মোঃ আলাউদ্দীন,আনারুল ইসলাম রানা ও মোঃ জেরাকুল ইসলামকে সমন্বয়ক কওে বাংলাদেশ সাধারন ছাত্র অধিকার সংরক্ষন পরিষদ দিনাজপুর সরকারী কলেজ শাখা গঠন করা হয়েছে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য