দিনাজপুর সংবাদাতাঃ “নারী ও বালিকাদের ক্ষমতায়ন, হোক না তারা অটিজম বৈশিষ্ট সম্পন্ন”- এবারের প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে জেলা প্রশাসন, সমাজসেবা কার্যালয়, দিনাজপুর এবং প্রতিবন্ধী সেবা ও সাহায্য কেন্দ্র আয়োজিত এবং স্থানীয় স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা, বুদ্ধি প্রতিবন্ধী ও অটিষ্টিক বিদ্যালয় সমূহ দিনাজপুর এর সহযোগিতায় ২ এপ্রিল ১১তম বিশ্ব অটিজম সচেনতা দিবস উপলক্ষে বর্ণাঢ্য র‌্যালী, আলোচনা সভা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়।

সকাল ১০ টায় জেলা প্রশাসন কার্যালয় প্রাঙ্গণ হতে বর্ণাঢ্য র‌্যালির উদ্বোধন করেন প্রধান অতিথি জেলা প্রশাসক ড. আবু নঈম মুহাম্মদ আব্দুছ ছবুর। র‌্যালিটি শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে শিশু একাডেমিতে গিয়ে সমাপ্ত হয়।

শিশু একাডেমির মিলনায়তনে আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেন সমাজসেবা কার্যালয়ের উপ-পরিচালক স্টিফেন মুর্মু। বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন অতিরিক্ত পুলিশ সপার মাহফুজ্জামান আশরাফ, বাংলাদেশ জাতীয় সমাজকল্যাণ পরিষদ ঢাকা’র নির্বাহী সদস্য মোঃ সফিকুল ইসলাম।

স্বাগত বক্তব্য রাখেন সমাজসেবা কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক অনুরূদ্দ কুমার রায়। সঞ্চালকের দায়িত্ব পালন করেন শহর সমাজসেবা অফিসার মোঃ মাইনুল ইসলাম।

শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন দিনাজপুর বুদ্ধি প্রতিবন্ধী ও অটিষ্টিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মোঃ আবুল শাহনেওয়াজ, প্রতিবন্ধী বিষয়ক কর্মকর্তা মোঃ মেহেদী হাসান। বক্তারা বলেন অটিজম স্নায়ু বিকাশ জনিত বৈচিত্র।

এ ধরনের প্রতিবন্ধী ব্যক্তিদের সাধারণত শারীরিক গঠনের কোন সমস্যা বা ত্রুটি থাকে না। বরং তাদের চেহেরা বা অবয়ব অন্যান্য সুস্থ ও স্বাভাবিক মানুষের মত হয়ে থাকে। অটিজম সাধারণত মেয়েদের তুলনায় ছেলেদের মধ্যে ৪ গুণ বেশি দেখা যায়। অটিজম ব্যক্তিদের উন্নয়নের মুল স্রোতধারায় সম্পৃক্ত করতে হবে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য