আরিফ উদ্দিন, গাইবান্ধা থেকেঃ গাইবান্ধায় গত চারদিনে দু’শতাধিক ডায়রিয়া রোগী স্থানীয় সদর আধুনিক হাসপাতালে চিকিৎসা নিয়েছেন। শনিবারও হাসপাতালে ৫২ জন রোগী ভর্তি ছিলেন।

আক্রান্তদের মধ্যে পৌর এলাকার ডেভিড কোম্পানী পাড়া ও সরকার পাড়ার লোকজনের সংখ্যাই ছিল বেশি। এছাড়া দক্ষিণ ধানঘড়া, পলাশপাড়া, থানাপাড়া ও কলেজপাড়া থেকে ডায়রিয়া রোগী হাসপাতালে ভর্তি হয়েছে।

গাইবান্ধা সদর আধুনিক হাসপাতালের তত্ত্বাবধায়ক ডা. অমল চন্দ্র সাহা জানান, গত ২৮ মার্চ থেকে ডায়রিয়া আক্রান্ত রোগী হাসপাতালে আসতে শুরু করে। এ পর্যন্ত ১৭৫ জন রোগী ডায়রিয়া বিভাগে ভর্তি হয়ে চিকিৎসা নিয়েছে। এছাড়াও বহির্বিভাগ থেকেও বেশকিছু রোগী চিকিৎসা নিয়ে বাড়ি ফিরে গেছে।

তিনি জানান, বাসি পঁচা খাবার গ্রহণ বা খাবার পানি থেকে ডায়রিয়া আক্রান্ত হওয়ার ঘটনা ঘটে থাকতে পারে। সাধারণত এক দিনের চিকিৎসাতেই আক্রান্তরা সুস্থ হচ্ছেন। ডায়রিয়া বিভাগের শয্যা সংখ্যা ২০ টি হলেও এখন দ্বিগুণের বেশি রোগী থাকায় তাদের হাসপাতালের বারান্দা, সিঁড়িসহ বিভিন্ন স্থানে রেখে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে।

তবে ওষুধ, স্যালাইন বা অন্য উপকরণের কোন অভাব নেই বলেও তিনি জানান।

গাইবান্ধা সদর আধুনিক হাসপাতালের আবাসিক চিকিৎসক ডা. এসআইএম শাহীনুল ইসলাম জানান, আক্রান্তদের মধ্যে বয়স্ক নারী পুরুষ ছাড়া শিশুও রয়েছে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য