দিনাজপুর সংবাদাতাঃ পার্বতীপুরে মন্মথপুর ইউনিয়নের ক্যানেলের বাজার দেবীডুবা বিল থেকে উদ্ধার হওয়া বস্তাবন্দি কলেজ ছাত্রের লাশ সনাক্ত হয়েছে। এব্যাপারে পার্বতীপুর মডেল থানায় অজ্ঞাতনামা তিনজনকে আসামী করে একটি হত্যা মামলা দায়ের করা হয়েছে। লাশ ময়নাতদন্তের জন্য দিনাজপুর এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

পার্বতীপুর মডেল থানার ওসি তদন্ত ইমতিয়াজ কবির জানান, বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় পুলিশ বস্তাবন্দি লাশ উদ্ধার করে।

ঘটনাস্থলে নিহতের দাদা মোঃ সিরাজ উদ্দীন পরনের প্যান্ট শার্ট দেখে লাশটি তার নাতি সাইদুজ্জামান সুমনের (১৭) বলে শনাক্ত করেন। সুমন পার্বতীপুর আদর্শ ডিগ্রী কলেজের দ্বাদশ শ্রেনির ছাত্র। তার বাবার নাম মোঃ মতিয়ার রহমান। বাড়ী উপজেলার চন্ডিপুর ইউনিয়নের চৈতাপাড়া গ্রামে।

সুমনের পরিবার সুত্রে বলা হয়েছে, ২৮ দিন পূর্বে বাড়ী থেকে বেরিয়ে যায়। এরপর তার কোন খোঁজ খবর পাওয়া যাচ্ছিল না। তদন্ত ওসি জানান, লাশের অবস্থা দেখে ধারনা করা হচ্ছে, তাকে একমাস আগে হত্যা করে বস্তাবন্দি করে বিলের পানিতে ডুবে রাখা হয়েছিল।

লাশ প্রত্যক্ষদর্শীদের ধারনা, তাকে গলা কেটে, নৃশংস পন্থায় হত্যা করা হয়েছে। এর পেছনে নারী ঘটিত ঘটনা থাকতে পারে বলে সন্দেহ করছেন তারা।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য