মানব পাচারের দায়ে দোষী সাব্যস্ত হয়েছেন পাঞ্জাবি গায়ক দালের মেহেন্দী। তার ২ বছরের সাজা ঘোষণা করে পাতিয়ালার আদালত। আদালতের নির্দেশ পাওয়ার পরই দালের মেহেন্দীকে পাঞ্জাব পুলিশের হেফাজতে নেওয়া হয়।

জানা গেছে, তাঁকে এখন হাজতে রাখা হয়েছে। শিগগিরই কারাগারে পাঠানো হবে।

২০০৩ সালে পাঞ্জাব বলবেহরা গ্রামের জনৈক বকশিস সিংহের লিখিত অভিযোগের ভিত্তিতে দালের, তার ভাই শামসের এবং তাদের কয়েকজন আত্মীয়ের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করে। ২০১৭ সালের অক্টোবরে মারা যান শামসের।

তিনি দালের ভাইদের দ্বারা প্রতারিত হয়েছেন। দালের মেহেন্দির ট্রুপের সঙ্গে অনুষ্ঠান করতে বিদেশে নিয়ে যাওয়ার টোপ দিয়ে তার থেকে লক্ষাধিক টাকা মেহেন্দী ভাইরা নিয়েছিল বলে অভিযোগ। এই অভিযোগ জমা হওয়ার পর মেহেন্দী ভাইদের বিরুদ্ধে একই ধরনের অভিযোগ আরও জমা হতে থাকে।

২০০৬ সালে পুলিশ দালের মেহেন্দী নির্দোষ, এই মর্মে আদালতে এই মামলা থেকে তাকে অব্যাহতি দেওয়ার আবেদন জানায়। কিন্তু পুলিশের সেই আবেদন খারিজ করে গায়কের বিরুদ্ধে তদন্ত চালানোর নির্দেশ দেয় আদালত।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য