বীরগঞ্জ (দিনাজপুর) সংবাদাতাঃ দিনাজপুরের খানসামা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের (পাকেরহাট) পুরাতন ভবনে আর্কস্মিক এক অগ্নিকান্ডের ঘটনা ঘটেছে। তদন্তে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের মেডিকেল অফিসার ডা. শামসুদ্দোহা মুকুলের নেতৃত্বে ৩ সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে।

শনিবার সকাল ১০টার দিকে খানসামা ৫০ শয্যা বিশিষ্ট স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের (পাকেরহাট) পুরাতন ভবনের তৃতীয় তলায় এ অগ্নিকান্ডের ঘটনাটি ঘটেছে।
তবে অগ্নিকান্ডে বড় ধরনের ক্ষয়ক্ষতি বা হতাহতের ঘটনা ঘটেনি।

কর্তব্যরত মেডিকেল অফিসার ডা. আব্দুল আউয়াল জানান, সকাল সাড়ে ১০টার দিকে হাসপাতালে ভর্তিরত রোগী দেখার সময় আগুনে পোড়ার গন্ধ ও জানালা দিয়ে ধোঁয়া দেখা যায়। এসময় হাসপাতালে কর্মরত কর্মকর্তা-কর্মচারী ও রোগী এবং তাদের স্বজনদের চিৎকারে আশপাশের ব্যবসায়ী ও এলাকাবাসি ছুটে আসে। ঘন্টাব্যাপি তাদের প্রচেষ্টায় আগুন নিয়ন্ত্রণে আসে।

মেডিকেল অফিসার ডা. শামসুদ্দোহা মুকুল জানান, অগ্নিকান্ডে হাসপাতালের পুরাতন ভবনের তৃতীয়তলার ওইকক্ষে রক্ষিত ১২বছর পূর্বের কিছু পুরাতন কাগজপত্রাদি, পরিত্যক্ত যন্ত্রাংশ ও পুরাতন বেড পুড়ে যায়। এ ঘটনায় নীলফামারী দমকল বাহিনীর একটি ইউনিট ঘটনাস্থলে আসলেও তার আগেই আগুন নিয়ন্ত্রণে আসে।

উপজেলা স্বাস্থ্য ও প. প. কর্মকর্তা ডা. নাজমুল ইসলাম জানান, কিভাবে আগুন লেগেছে তা সঠিক করে বলা যাচ্ছে না। তবে বিড়ি-সিগারেটের আগুন থেকেই এ ঘটনা ঘটতে পারে বলে সন্দেহ করা হচ্ছে। তদন্তের জন্য উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের মেডিকেল অফিসার ডা. শামসুদ্দোহা মুকুলের নেতৃত্বে ৩ সদস্যের একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) আহমেদ মাহবুব-উল-ইসলাম, আঙ্গারপাড়া ইউপি চেয়ারম্যান মোস্তফা আহম্মেদ শাহ্সহ আওয়ামীলীগ নেতৃবৃন্দ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য