আজিজুল ইসলাম বারী,লালমনিরহাট থেকে: মুক্তিযোদ্ধা বিষয়ক মন্ত্রী আ.ক.ম মোজাম্মেল হক বলেছেন, মুক্তিযোদ্ধার কারণেই আজ ভুয়া মুক্তিযোদ্ধা তৈরী হচ্ছে। প্রতিদিন মুক্তিযোদ্ধার সংখ্যা বেড়েই চলছে।

এর জন্য আমরা মুক্তিযোদ্ধারাই দায়ী। মুক্তিযোদ্ধার সন্তানরা বলতে পারে না, তার বাবা কোন সেক্টরে যুদ্ধ করেছে। বলতে পারে না জাতীয় ৪ নেতার নাম। লজ্জা জনক হলেও সত্য মুক্তিযোদ্ধার অনেক সন্তান জানেন না, স্বাধীনতা দিবস ও বিজয় দিবস কবে। এ লজ্জা থেকে আমাদের বের হয়ে আসতে হবে।

রোববার (০৪ মার্চ) দুপুরে মুক্তিযুদ্ধের একমাত্র মুক্ত অঞ্চল ৬নং সেক্টর হেড কোর্য়াটার বুড়িমারীতে মুক্তিযোদ্ধাদের এক সম্মাননা প্রদান অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

মুক্তিযোদ্ধা বিষয়ক মন্ত্রী বলেন, ৭১ সালে বুলেটের মাধ্যমে বঙ্গবন্ধুর আওয়ামীলীগকে দেশ উপহার দিয়েছে মুক্তিযোদ্ধারা। এবাব বুলেট নয়, ব্যালেটের মাধ্যমে আওয়ামীলীগকে ক্ষমতায় আনবে মুক্তিযোদ্ধারা।

স্বাধীনতার পরবর্তী শেখ হাসিনা ছাড়া কোন সরকার মুক্তিযোদ্ধাদের জন্য কিছুই করে নাই। ইতোমধ্যে বাড়িতে বাড়িতে গিয়ে মুক্তিযোদ্ধাদের বেতন দেয়া সিন্ধান্ত হয়েছে।

প্রতি মুক্তিযোদ্ধার যুদ্ধকালীন স্মৃতি ১০ মিনিট করে লিপি বন্ধ করা হবে পাটগ্রামের ইউএনও নুর কুতুবুল আলমের সভাপতিত্বে উক্ত অনুষ্ঠানের আয়োজন করেন রুপালী ব্যাংকের নির্বাহী পরিচালক ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সিনেট সদস্য আতাউর রহমান প্রধান।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসাবে আরো বক্তব্য রাখেন, সমাজ কল্যাণ প্রতিমন্ত্রী নুরুজ্জামান আহেম্মদ, প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয় সংসদীয় কমিটির সভাপতি মোতাহার হোসেন এমপি, সংসদ সদস্য এ্যাড. সফুরা বেগম রুমি, লালমনিরহাট জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান এ্যাড. মতিয়ার রহমান।

বক্তব্য রাখেন, পাটগ্রাম উপজেলা চেয়ারম্যান রুহুল আমিন বাবুল, জেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার মেজবাহ আলম ও পাটগ্রাম উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি আনোয়ারুল ইসলাম নাজু।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য