কুড়িগ্রামের উলিপুরে অপরিকল্পিত ভাবে সৌর বিদ্যুৎ প্রকল্প বাস্তবায়ন করায় শিক্ষা প্রতিষ্ঠান সহ হাজার হাজার একর আবাদি জমি ও কয়েকটি গ্রাম নদীগর্ভে বিলীন হওয়ার আশংকার প্রতিবাদে মানববন্ধন করেছে এলাকাবাসি ও শিক্ষার্থীরা।

আজ সোমবার (১৯ ফেব্রুয়ারী) দুপুরে উপজেলার থেতরাই, হোকডাঙ্গা এলাকাবাসির আয়োজনে ও থেতরাই বাঁচাও হোকডাঙ্গা বাঁচাও আন্দোলন কমিটির উদ্যোগে তিস্তা নদীর উপকন্ঠে হোকডাঙ্গায় এ মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।

এ সময় বক্তব্য রাখেন, থেতরাই ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি আব্দুল জলিল শেখ, ইউপি সদস্য রুহুল কুদ্দুস, হোকডাঙ্গা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আজিজুল হক আনছারী, দক্ষিণ চর হোকডাঙ্গা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আব্দুস ছোবাহান, মুক্তিযোদ্ধা আজিজুর রহমান, ধীরেন্দ্রনাথ, হোকডাঙ্গা ১নং সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক নূর মোহাম্মদ, আবু তালেব ব্যাপারী প্রমূখ।

বক্তরা বলেন, অপরিকল্পিত ভাবে থেতরাই সীমান্তে গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জ উপজেলার তিস্তা নদীর চরে ৯’শ একর জমিতে সৌর বিদ্যুৎ প্রকল্পের মাটি ভরাট করনের কাজ করছে। সেই সাথে তারা নদীর পানি চলাচলের গতিপথ বন্ধ করে দিলে উজানে উলিপুর উপজেলার থেতরাই হোকডাঙ্গা মৌজা দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। যার ফলে গত ৩ মাসে ২ শতাধিক ঘর-বাড়ি, আবাদি জমি নদীগর্ভে বিলীন হয়ে গেছে।

বর্তমানে হোকডাঙ্গা ফকিরপাড়া বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়, ২নং হোকডাঙ্গা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, ১নং সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, দক্ষিণ চর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, ভারতপাড়া কমিউনিটি ক্লিনিক, বকসীহাট কমিউনিটি ক্লিনিক, ঘাটের বাজার, বকসীহাটসহ কয়েকটি গ্রাম ও হাজার হাজার একর আবাদি জমি নদীগর্ভে বিলীন হয়ে যাওয়ার আশংকা করছেন।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য