বলিউডের খ্যাতিমান প্রযোজক ও পরিচালক একতা কাপুর বলেছেন, বলিউডে এমন কিছু অভিনেতা আছেন যারা কাজ পেতে তাদের যৌনতা ব্যবহার করে থাকেন। কাজ পেতে তারা প্রয়োজনে বিছানায় চলে যান।

ভারতীয় এক সংবাদমাধ্যমের থেকে আয়োজিত আলোচনা সভায় তিনি এই মন্তব্য করেন।

উপস্থাপক বরখা দত্তের এক প্রশ্নের জবাবে একতা আরো জানান, কেবলমাত্র কেউ ইন্ডাস্ট্রিতে ভাল জায়গায় রয়েছে বলেই কাউকে দোষারোপ করা উচিত নয়। অভিনেতা-অভিনেত্রীরাও কাজ পেতে নিজেদের শরীরকে ব্যবহার করেন।

বিশ্বজুড়ে চলছে যৌন হেনস্তার জোর বিতর্ক। হলিউডের চলচ্চিত্র প্রযোজক হার্ভে ওয়েইনস্টেইনের বিরুদ্ধে একাধিক অভিনেত্রীর যৌন হয়রানির অভিযোগ ওঠার পর বলিউডের ভেতরেও এমন যৌন শোষণ হচ্ছে বলে অভিযোগ উঠেছে।

একতার মতে, ওয়েইনস্টেইনের ঘটনাটি কেবলমাত্র যৌনতার সঙ্গে সম্পর্কিত নয়। এর সঙ্গে ক্ষমতা দখলের বিষয়টিও জড়িত। আর এটাই বাস্তব।

তিনি যোগ করেন, এই ঘটনা হার্ভে ওযয়েনস্টেইন পর্যন্ত সীমাবদ্ধ নয়। বলিউডে এমন অনেক পরিচালক বা প্রযোজক আছেন যারা অনেকেই এই যৌন হেনস্থার শিকার হয়ে থাকেন। পাশাপাশি এমন কিছু অভিনেতা বা অভিনেত্রী আছেন তাঁরা স্ব ইচ্ছায় নিজেদের যৌনতা ব্যবহার করে থাকেন কেবলমাত্র কাজ পাওয়ার আশায়।

তিনি বলেন, ‘ধরা যাক, একজন উঠতি অভিনেতা কিংবা অভিনেত্রী কোনও প্রযোজক কিংবা পরিচালকের সঙ্গে শারীরিক সম্পর্কে লিপ্ত হয়েছেন। এক সপ্তাহ পর সেই অভিনেতা অথবা অভিনেত্রী যদি এই সম্পর্কের বিনিময়ে কাজ চান, আর উলটোদিকের মানুষটা যদি কেবল শারীরিক সম্পর্কের বিনিময়ে তা দিতে না রাজি হন তখনই বেশিরভাগ ক্ষেত্রে অভিযোগ ওঠে। এ বিষয়টি অনেকটা মুদ্রার এপিঠ-ওপিঠের মতো বলেই মনে করেন একতা।’

আমি বিশ্বাস করি যে শিকারিকে ক্ষমতার উপর ভিত্তি করে একটি বাক্সে রাখা উচিত নয়। তবে এটা সর্বদা সত্য নয় যে, যার ক্ষমতা নেই তারাই একমাত্র এই ঘটনার শিকার হয়ে থাকেন, যোগ করেন একতা।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য