দিনাজপুর সংবাদাতাঃ হাজী মোহাম্মদ দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (হাবিপ্রবি) ইনস্টিটিউট অব রিসার্চ অ্যান্ড ট্রেনিং’র (আইআরটি.) উদ্যোগে বিশ্ববিদ্যালয়ের পার্শবর্তী এলাকা-কর্ণাই, মহাবলীপুর, মাদ্রাসাপাড়া, সুবড়া, চাঁদগঞ্জ, রাণীগঞ্জ, শিবপুর, আমোইর, গোপালগঞ্জ ও শেখপুরা অঞ্চলের কৃষকদের জন্য ২ দিনব্যপাী আধুনিক পদ্ধতিতে শীতকালীন ফসলের পরিচর্যা বিষয়ক প্রশিক্ষণ শুরু হয়েছে।

বুধবার (৭ ফেব্রæয়ারী) সকাল ৯টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের আইআরটি’র সেমিনার কক্ষে প্রধান অতিথি হিসেবে প্রশিক্ষণ কর্মশালার উদ্বোধন করেন হাবিপ্রবি’র ভাইস-চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. মু. আবুল কাসেম। ৮ ফেব্রæয়ারী প্রশিক্ষণ কর্মশালা শেষ হবে।

আইআরটি’র পরিচালক প্রফেসর ড. বিধান চন্দ্র হালদার’র সভাপতিত্বে প্রশি¶ণ কর্মশালায় অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন পোস্টগ্র্যাজুয়েট স্টাডিজ অনুষদের ডীন প্রফেসর মো. মিজানুর রহমান এবং রেজিস্ট্রার প্রফেসর ড. মো. সফিউল আলম।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে ভাইস-চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. মু. আবুল কাসেম বলেন, দক্ষতা বৃদ্ধির জন্য প্রশিক্ষণের বিকল্প নেই। বর্তমান সরকার কৃষিবান্ধব সরকার। কৃষকদের সফলতায় আজ বিশ্বের প্রায় ২৭টি দেশে সবজি রপ্তানী হচ্ছে। মাছ উৎপাদনে বাংলাদেশ বিশ্বের ৪র্থ অবস্থানে। এ সব কিছুই সম্ভব হয়েছে কৃষকের অক্লান্ত পরিশ্রমের ফলে। তিনি বলেন, নিরাপদ খাদ্য উৎপাদন এবং নিরাপদ খাদ্য গ্রহণে কৃষকদের আধুনিক প্রযুক্তিগত জ্ঞান থাকা জরুরি।

বিশ্ববিদ্যালয়ের পার্শ্ববর্তী এলাকায় হ্যাচারি স্থাপন এবং ভ্রাম্যমান পশু হাসপাতাল স্থাপনের উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। দুইদিনব্যাপী এ প্রশিক্ষণ অনেক ফলপ্রসূ হবে এবং ধারাবাহিকভাবে এ প্রশিক্ষণ কর্মসূচি অব্যাহত থাকবে। এ প্রশিক্ষরণের মাধ্যমে কৃষকরা তাদের কর্মক্ষেত্রে দক্ষতাবৃদ্ধিতে কাজে লাগবে বলে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন আইআরটি’র সহকারী পরিচালক মো. শাহজাহান মন্ডল। প্রশি¶ণ কর্মশালায় ২০ জন কৃষক অংশগ্রহণ করেছেন।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য