যদি সকালে কাজে বেরোনোর সময় গোসল করা আপনার অভ্যাস হয় বা গোসল না করলে সমস্যা হয়, তা হলে অবশ্যই সকালে গোসল করুন। কিন্তু যদি ঘুমের সমস্যা থাকে বা ভালো ত্বক পেতে চান, তা হলে অবশ্যই রাতে গোসল করুন।

যদি রাতে গোসল নাও করেন, ঘুমনোর সময় অবশ্যই অন্তত ভালো করে মুখ ধুয়ে ও পরিষ্কার করে তবেই শুতে যান।

উইমেনস স্কিন হেলথ প্রোগ্রাম ফর নর্থওয়েস্টার্ন মেডিসিনের সহকারী অধ্যাপক বেথানি স্ক্লোসার বলেন, রাতে গোসল করলে ত্বক পরিষ্কার ও স্বাস্থ্যোজ্জ্বল থাকে।

সারা দিন শরীর থেকে অতিরিক্ত তেল বেরোয় এবং ধুলো-ময়লা জমে রাতে গোসল করলে তা পরিষ্কার হয়ে যায়।

ন্যাশনাল সেন্টার ফর বায়োটেকনোলজি ইনফরমেশন অনুযায়ী, গরম জলে গোসল করার পর শরীরের তাপমাত্রা কমে যায়। ফলে ক্লান্তি দূর হয় ও ঘুম আসে। যারা ইনসমনিয়ায় ভুগছেন তাদের জন্য রাতে গোসল করা খুবই উপকারী।

ইয়েল স্কুল অব মেডিসিনের অধ্যাপক মোনা গোহরা জানান, যদি আপনি খুব অগোছালো হন, তা হলে অবশ্যই দিনে গোসল করুন।

কারণ সকালে গোসল করলে তা ত্বকের ফোলা ভাব কমাতে ও ফ্রেশ দেখাতে সাহায্য করে। যদি কোনো সৃজনশীল কাজের সঙ্গে যুক্ত থাকেন তা হলেও সকালে গোসল করা উচিত।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য