আজিজুল ইসলাম বারী,লালমনিরহাট থেকেঃ সীমান্তে হত্যা বন্ধে বিজিবি-বিএসএফ যৌথভাবে কাজ করে যাচ্ছে বলে জানিয়েছেন বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ বিজিবি’র মহা পরিচালক মেজর জেনারেল আবুল হোসেন। মঙ্গলবার দুপুরে লালমনিরহাটে পাটগ্রাম উপজেলার বাউরা জমগ্রাম সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠে শীতার্ত মানুষের মাঝে শীতবস্ত্র বিতরণের সময় এসব কথা বলেন। তিনি আরও জানান সীমান্তে অপরাধ কমিয়ে আনতে বিজিবি-বিএসএফ এক হয়ে কাজ করছে।

আমি ভারত গিয়ে বিএসএফ’র সাথে বৈঠক করেছি। বিএসএফ’র প্রধান বাংলাদেশে এসেছিলো সে সময়েও কথা হয়েছে। আমি বিএসএফকে বলে দিয়েছি, তারা যদি সীমান্তে হত্যা বন্ধ না করে তাহলে তাদের দেশের লোকও বাংলাদেশে আসে, আমারও বসে থাকবো না।

তিনি সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের উওরে বলেন, সীমান্তে হত্যা বন্ধে বিজিবি যতটা আন্তরিক ভারতীয় বিএসএফ ততটা আন্তরিক হয়ে উঠতে পারে নাই। বিএসএফ এখনো তাদের ওই বিশাল বাহীনিকে বিভিন্ন সমস্যার কারণে পুরোপুরি নিয়ন্ত্রণ করতে পারছে না। বিএসএফ’র সমস্যার কারণে এখনো সীমান্তে হত্যাকান্ড বন্ধ হয়নি। তবে বিএসএফ আমাদের কথা দিয়েছে, তারা সীমান্তে হত্যা বন্ধ করতে কাজ করছে। শীঘ্রই সীমান্তে হত্যা কান্ড কমে আসবে।

সাংবাদিকদের বিজিবি প্রধান আবুল হোসেন জানান, সীমান্ত সড়ক তৈরীর সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার। মায়ানমার সীমান্ত থেকেই এ সড়কের কাজ শুরু হবে। উক্ত শীতবস্ত্র বিতরণ অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন, রংপুর বিজিবি’র রিজিয়ন কমান্ডার ব্রিগেডিয়ার জেনারেল এ কে এম সাইফুল ইসলাম, লালমনিরহাট জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ শফিউল আরিফ, ৭ বিজিবি’র রংপুর ব্যাটালিয়নের কমান্ডার লে. কর্ণেল মাহফুজ উল বারী, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার এস এম নাসির উদ্দিন ও পাটগ্রাম ইউএনও নূর কুতুব উল আলম।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য