রংপুরের রিজিয়ন কমান্ডার, বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ, উত্তর-পশ্চিম রিজিয়ন, রংপুর ও দক্ষিণ-পশ্চিম রিজিয়ন, যশোর এবং আইজি, বর্ডার সিকিউরিটি ফোর্স, নর্থ বেঙ্গল, সাউথ বেঙ্গল ও গোহাটি ফ্রন্টিয়ার পর্যায়ে রংপুরে ভিন্ন জগতে সীমান্ত সমন্বয় সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়।

ভারতীয় প্রতিনিধি দল ৭ জানুয়ারি ২০১৮ তারিখে ৮ ঘটিকায় বাংলাবান্ধা আইসিপি দিয়ে ভারত হতে বাংলাদেশে আগমন করেন।

সীমান্ত সমন্বয় সম্মেলনে বাংলাদেশের ১৮ সদস্য বিশিষ্ট প্রতিনিধি দলের নেতৃত্ব দেন ব্রিগেডিয়ার জেনারেল কাজী তৌফিকুল ইসলাম, বিজিএিম, পিএসসি, অতিরিক্ত মহাপরিচালক, রিজিয়ন কমান্ডার যশোর এবং ৮ সদস্য বিশিষ্ট ভারতীয় প্রতিনিধি দলের নেতৃত্ব দেন ড, রাজেশ মিশরা, আইপিএস, আইজি বিএসএফ, নর্থ বেঙ্গল ফ্রন্টিয়ার।

এছাড়াও ওই সীমান্ত সমন্বয় সম্মেলনে ব্রিগেডিয়ার জেনারেল এ কে এম সাইফুল ইসলাম, বিজিবিএম, পিএসসি, রিজিয়ন কমান্ডার, উততর পশ্চিম রিজিয়ন,রংপুর এবং বিএসএফ এর আইজি শ্রী রাকেম আগারওয়াল, আইপিএস, গৌহাটি ফ্রন্টিয়ার ও বিজিবি”র পক্ষ থেকে ৬ সেক্টও কমান্ডার এবং বিএসএফ এর পক্ষ থেকে ৪ ডেপুটি ইন্সপেক্টও জেনারেল অংশগ্রহণ করেন।

এ সম্মেলনে সীমান্ত সংক্রান্ত দ্বিপাক্ষিক স্বার্থ সংশ্লিষ্ট বিবিধ বিষয়াদি আলোচনা করা হয়। আলোচনায় সীমান্ত দূর্ঘটনা বিশেষ করে সীমান্ত এলাকায় বিএসএফ কর্তৃক বাংলাদেশী নাগরিকদেরকে হত্যা, আহত, বিএসএফ এবং ভারতীয় নাগরিক কর্তৃক অবৈধ অনুপ্রবেশ/সীমান্ত লঙ্ঘন, বিএসএফ কর্তৃক বাংলাদেশী নাগরিকদেও গ্রেফতার/আটক/মারধর করা, ভারত হতে বাংলাদেশে অবৈধভাবে আগ্নেয়াস্ত্র-গোলাবারুদ ও বিভিন্ন প্রকার মাদকদ্রব্য এবং গরু চোরাচালানের বিষয়াদি বিশেষভাবে গুরুত্বারোপ করা হয়।

এছাড়াও দুদেশের সীমান্ত সংক্রান্ত বিষয়াদি যেমন ১৫০ গজের মধ্যে অপেক্ষমান উন্নয়নমূলক কর্মকান্ড, সীমান্ত এলাকার যৌথ ও কার্যকরী নজরদারি ও ব্যবস্থাপনা এবং দুদেশেরর সম্পর্ক উন্নয়নে সম্ভাব্য গৃহীত কার্যক্রম সম্পর্কিত বিষয়ে আলোচনা করা হয়। গত রবিবার ১ ধাপে সমন্বয় সভা এর পরে ১০ জানুয়ারী পঞ্চগড়ে অনুষ্ঠিত হবে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য