বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির সুযোগ পেয়েও অর্থাভাবে ভর্তি হতে পাচ্ছিলনা কাউনিয়ার অদম্য মেধাবী ছাত্রী কাকলী রানী।

এ বিষয়ে ইউনিভার এন্ড মেডিকেল স্টুডেন্ট এ্যাসোসিয়শন (আমসা) এর বরাবরে আবেদন করলে সংগঠনটি তার ভর্তির বিষয়ে এগিয়ে আসে।

কাউনিয়া উপজেলা নির্বাহী অফিসারের কার্যালয়ে দরিদ্র ছাত্রী কাকলী রানীর হাতে ৫ হাজার উপজেলা নির্বাহী অফিসার এসএম নাজিয়া সুলতানা তুলে দেন।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন প্রত্যাশার আলো পত্রিকার প্রকাশক ও সম্পাদক এবং আমসা সদস্য সারওয়ার আলম মুকুল, আমসার সভাপতি জোবাইদুল ইসলাম, কোষাধ্যক্ষ দেবরাজ বর্মন, সদস্য ডাঃ সজিব,জামান,নিশিথ,সাংবাদিক জহির রায়হান প্রমূখ।

ভর্তির টাকা হাতে পেয়ে দরিদ্র ছাত্রী কাকলী রানীর চোখ দিয়ে অশ্রু গড়িয়ে পড়ে। সে জানায় এ টাকা নাপেলে আমি ভর্তি হতে পারতাম না। আমি লেখা পড়া করে দেশ ও মানবতার কল্যানে কাজ করতে পারি এ জন্য সকলের দোয়া কামনা করে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য