উত্তর কোরিয়া পরিস্থিতি নিয়ে রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভøাদিমির পুতিনের সঙ্গে কথা বলেছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প।

গত বৃহস্পতিবার দুই নেতার মধ্যে টেলিফোনে কথা হয় বলে হোয়াইট হাউজের এক বিবৃতিতে জানানো হয়েছে, খবর বার্তা সংস্থা রয়টার্সের।

কোরীয় অঞ্চলে ক্রমবর্ধমান উত্তেজনার মধ্যে দুই রাষ্ট্রপ্রধানের এই আলোচনাকে গুরুত্বপূর্ণ হিসেবেই বিবেচনা করা হচ্ছে।

“দুই নেতা উত্তর কোরিয়ার অতি বিপজ্জনক পরিস্থিতি মোকাবেলায় একসঙ্গে কাজ করার বিষয়ে কথা বলেছেন,” বলে হোয়াইট হাউজ।

জাতিসংঘের নিষেধাজ্ঞা ও আন্তর্জাতিক চাপ উপেক্ষা করেই চলতি বছর একের পর এক ক্ষেপণাস্ত্র ছুড়েছে উত্তর কোরিয়া, চালিয়েছে ষষ্ঠ ও সবচেয়ে শক্তিশালী পারমাণবিক পরীক্ষা। কোরীয় অঞ্চলে ‘মার্কিন আগ্রাসন’ এবং জাপান ও দক্ষিণ কোরিয়ার সঙ্গে ওয়াশিংটনের সামরিক মহড়ার প্রতিক্রিয়ায় ‘আত্মরক্ষার্থে’ এই ক্ষেপণাস্ত্র ও পারমাণবিক কর্মসূচি চালানো হচ্ছে বলে দাবি পিয়ংইয়ংয়ের।

এ নিয়ে ট্রাম্প ও কিম জং উনের মধ্যে কথার লড়াইও চলছে।

দক্ষিণ কোরিয়ার সঙ্গে সবচেয়ে বড় বিমান মহড়া করার পর জাপানের সঙ্গে যৌথ মহড়া শুরু করেছে মার্কিন বাহিনী; কাছাকাছি সময়ে বেইজিংয়ে চলছে চীন ও রাশিয়ার বিমান মহড়া।

এর মধ্যেই ট্রাম্প ও পুতিনের ফোনালাপ।

চীন ও রাশিয়া ধারাবাহিকভাবে কোরীয় অঞ্চলে উত্তেজনা কমাতে যুক্তরাষ্ট্র ও উত্তর কোরিয়া উভয়কেই উসকানিমূলক কর্মকা- পরিহার করার আহ্বান জানিয়ে আসছে।

গত বৃহস্পতিবার টেলিফোনে ট্রাম্প ‘বার্ষিক সংবাদ সম্মেলনে যুক্তরাষ্ট্রের শক্তিশালি অর্থনৈতিক অগ্রগতির কথা স্বীকার করে নেওয়ায়’ পুতিনকে ধন্যবাদ জানান বলেও হোয়াইট হাউজের বিবৃতিতে জানানো হয়েছে।

একই সংবাদ সম্মেলনে পুতিন মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের সময় ট্রাম্প-রাশিয়া যোগাযোগ নিয়েও কথা বলেন।

ট্রাম্পের প্রতিপক্ষরা ওই নির্বাচনে রাশিয়ার যোগসাজশের বিষয়টি নিয়ে ঘাঁটাঘাঁটি করে যুক্তরাষ্ট্রের ক্ষতি করছে বলে অভিযোগ করেন তিনি।

যুক্তরাষ্ট্রের নির্বাচনে ট্রাম্পের প্রচার শিবিরের সঙ্গে রাশিয়ার আঁতাতের বিষয় নিয়ে তদন্ত চলছে। যুক্তরাষ্ট্রের গোয়েন্দা সংস্থাগুলো বলছে, মস্কো নির্বাচনী ফল ট্রাম্পের অনুকূলে নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করেছে। পুতিন ও ট্রাম্প শুরু থেকেই এ অভিযোগ অস্বীকার করে আসছেন।

গত বৃহস্পতিবার ট্রাম্প-পুতিনের ফোনালাপের খবর দিয়েছে ক্রেমলিনও। দুই নেতা ‘কোরীয় অঞ্চলের পরিস্থিতি ও দ্বিপক্ষীয় বিভিন্ন বিষয় নিয়ে কথা বলেছেন’, জানিয়েছে তারা।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য