মোঃ আবেদ আলী, বীরগঞ্জ (দিনাজপুর) থেকেঃ বীরগঞ্জে শুক্রবার ঢাকা-পঞ্চগড় মহাসড়কের দু’পাশে শতশত অবৈধ দোকান-পাট ভেঙ্গে গুড়িয়ে দিয়েছে প্রশাসন।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট মোঃ আলম হোসেনের নেতৃত্বে ওসি তদন্ত মছেউল গনি এবং সড়ক ও জনপথ বিভাগের উপ-ভিাগিয় প্রকৌশলী কামরুল হাসান সরকারের সহযোগিতায় একদল পুলিশ-একদল শ্রমিক মাথায় লাল ফিতা বেধে ও বুলরেজার নিয়ে সকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত পৌরসভা হাট থেকে মৎস্য খামার এলাকা পর্যন্ত উচ্ছেদ অভিযান পরিচালনা করেন। উচ্ছেদ অভিযান পরিচালনা করাকালে মহাসড়কের দু’পাশে আধাপাকা শতশত অবৈধ দোকান-পাট ভেঙ্গে গুড়িয়ে দিয়েছে।

সড়ক ও জনপথ বিভাগের উপ-ভিাগিয় প্রকৌশলী কামরুল হাসান সরকার জানান, দীর্ঘ দিন ধরে অবৈধ দোকান-পাটের মালিকদের মুখে ও চিঠি-পত্র দিয়ে তাদের অবৈধ স্থাপনা সড়িয়ে নেওয়ার অনুরোধ করা হয়েছে কিন্তু তারা তাদের দোকানপাট সড়িয়ে না নিয়ে প্রশাসনের সাথে চ্যালেন্স করে জোর পূর্বক দখল করে রাখেন।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট মোঃ আলম হোসেন জানান, জেলা প্রশাসনের আদেশের পৃক্ষিতে উচ্ছেদ অভিযানের সিধান্ত গ্রহন করা হয়। দোকান মালিকদের বিষয়টি বিবেচনায় নিয়ে তাদের সাথে বারবার সভা করে অবৈধ স্থাপনা দোকানপাট সড়িয়ে নেওয়ার জন্য আমি নিজেই অনেকবার অনুরোধ করেছি কিন্তু তারা দোকান সড়িয়ে নেয়নি তাই উচ্ছেদ করতে বাধ্য হয়েছি।

দিনাজপুর জেলা পরিষদের গায়গার সামনে ও ব্যাক্তি মালিকানার মার্কেটের সামনের কতিপয় দোকান মালিক জানান, জেলা পরিষদের কাছে লিজ নিয়ে দোকান করেছি। বার্ষিক লিজের টাকা দেওয়ার পরেও মাসোহারা দিয়ে আসচ্ছি। মার্কেটের মালিকেরা সামনের সরকারী জায়গা ভাড়া দিয়ে দৈনিক ভাড়া আদায় করে আসচ্ছে। তবুও আমাদের আজ এ দুর্দশা।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য