আজিজুল ইসলাম বারী,লালমনিরহাট থেকে: লালমনিরহাটের বুড়িমারী স্থলবন্দর সীমান্তের ওপারে ভারতের কোচবিহার জেলার মেখলিগঞ্জ মহকুমার সর্দারপাড়া এলাকায় এক বাংলাদেশিকে আটক করেছে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী (বিএসএফ)। বৃহস্পতিবার রাতে সাকিব হোসেন (২২) নামে ওই বাংলাদেশিকে আটক করা হয়। তার কাছে বাংলাদেশি পাসপোর্ট ছিল।

লালমনিরহাট-১৫ বিজিবি ব্যাটালিয়নের পরিচালক লে.কর্নেল গোলাম মোর্শেদ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, আটককৃত সাকিব হোসেন পাটগ্রাম উপজেলার বুড়িমারী ইউনিয়নের মুংলিবাড়ী এলাকার আব্দুল মজিদের ছেলে। সাকিবের বাবা আব্দুল মজিদ বলেন,গত ২৬ সেপ্টেম্বর সাকিব বুড়িমারী-চ্যাংড়াবান্ধা স্থলবন্দর সীমান্ত পথে ভারতের কোচবিহার জেলার সর্দারপাড়া এলাকায় বোনের বাড়িতে বেড়াতে যায়।

বৃহস্পতিবার রাত ১০টার দিকে কোচবিহার-৬১ বিএসএফ ব্যাটালিয়নের একটি টহল দল তাকে চ্যাংড়াবান্ধা রেলওয়ে স্টেশনের এলাকা থেকে আটক করে নিয়ে যায়। তিনি অভিযোগ করে বলেন, ‘সাকিব বৈধভাবে ভারতে গেছে। কিন্তু পাসপোর্টধারী হওয়া সত্ত্বেও বিএসএফ তাকে আটক করেছে এবং অন্যায়ভাবে নির্যাতন করেছে। আমার ছেলেকে ফেরত চাই এবং এই ঘটনার বিচার চাই।

’লে.কর্নেল গোলাম মোর্শেদ বলেন, বিএসএফের হাতে আটক বাংলাদেশি সাকিব হোসেনকে ফেরত আনতে বিজিবি-বিএসএফের কোম্পানি কমান্ডার পর্যায়ে বুড়িমারী-চ্যাংড়াবান্ধা স্থলবন্দর জিরো পয়েন্টে এক পতাকা বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়েছে। বিএসএফের তরফ থেকে তাকে ফেরত পাঠানোর আলোচনা অব্যাহত আছে।’

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য