আফগানিস্তানের রাজধানী কাবুলে দু’টি মসজিদে সন্ত্রাসী হামলায় অন্তত ৭২ জন শাহাদাৎবরণ করেছেন।

ঘটনাস্থল থেকে আমাদের সংবাদদাতারা জানিয়েছেন, কাবুলের ইমাম জামান (আ.) মসজিদে এশার নামাজের সময় একজন আত্মঘাতী হামলাকারী বোমার বিস্ফোরণ ঘটায়।

এরপর আরও কয়েকজন অস্ত্রধারী মসজিদে প্রবেশ করে এবং মুসল্লিদের লক্ষ্য করে এলোপাথাড়ি গুলি চালায়। এর ফলে অন্তত ৩৯ জন মুসল্লি শাহাদাৎবরণ করেন।

ইমাম জামান (আ.) মসজিদে আহত হয়েছেন আরও অন্তত ৪২ জন মুসল্লি। সন্ত্রাসী গোষ্ঠী দায়েশ ওই মসজিদে হামলার দায় স্বীকার করেছে।

এদিকে কাবুলের ‘জামে গোর’ মসজিদেও এশার নামাজের সময় আত্মঘাতী হামলা চালিয়েছে এক সন্ত্রাসী। সেখানে অন্তত ৩৩ জন শহীদ হয়েছেন। আহত হয়েছে আরও অনেকে।

দু’টি মসজিদে হামলার ঘটনার নিন্দা জানিয়েছেন আফগান প্রেসিডেন্ট মোহাম্মাদ আশরাফ গনি। তিনি বলেছেন, সন্ত্রাসীরা মানবতা বিরোধী অপরাধ করেছে এবং ইসলাম এ ধরনের হামলার অনুমোদন দেয় না। এ ধরনের অপরাধীদের নিশ্চিহ্ন করার ওপর গুরুত্ব দিয়েছেন তিনি।

ইরানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র বাহরাম কাসেমি এক বিবৃতিতে ভয়াবহ এ হামলার তীব্র নিন্দা জানিয়েছেন। তিনি আফগান সরকার, জনগণ ও হতাহতদের পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানান।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য