দিনাজপুর সংবাদাতাঃ পৌরসভা, জেলা প্রশাসন ও পুলিশ প্রশাসনের দেয়া প্রতিশ্রুতি বাস্তবায়ন না করায় দিনাজপুর শহর এখন ইজি বাইকের দখলে। জনজীবন বিপর্যস্ত এবং দুর্ঘটনা ঘটছে অহরহ। প্রতিরোধের কোন উদ্যোগ নেই। পৌরসভার দেওয়া লাইসেন্স ব্যাতিত কোন ইজি বাইক শহরে চলাচল বন্ধ করার প্রতিশ্র“তি আজও বাস্তবায়ন হয়নি।

এক সময়ের সুন্দর শহর দিনাজপুর এখন ইজি বাইকের দখলে। ইজি বাইকের কারনে দিনাজপর শহরে দেখা দিয়েছে ব্যাপক যানজট এই যানজট সামাল দিতে ট্রাফিক পুলিশ হিমসিম খাচ্ছে। প্রশিক্ষনহীন ও অদক্ষ্য ইজি বাইক চালকদের কারনে প্রতিনিয়ত বাড়ছে সড়ক দুর্ঘটনা।

ভোর থেকেই দিনাজপুর সংলগ্ম বিরল, বোচাগঞ্জ, কাহারোল, বীরগঞ্জ, চিরিরবন্দর, খানসাম উপজেলার লাইসেন্স বিহীন ইজি বাইকগুলি ব্যাপক যানজটের সৃষ্টি করছে। গত জুন মাসে দিনাজপুর পৌরসভা ইজি বাইকগুলির লাইসেন্স প্রদানে সিদ্ধান্ত নিয়ে শহরের প্রায় ৫ হাজার ইজি বাইককে লাইসেন্স প্রদান করে।

সে সময় দিনাজপুরের পুলিশ সুপার বলেন, যানজট এরাতে দিনাজপুর শহরে অন্য উপজেলার কোন ইজি বাইককে শহরে প্রবেশ করতে দেয়া হবে না। কিন্তু গত ৪ মাসেও প্রতিশ্র“তি কার্যকারিতার মুখ দেখেনি। বর্তমান দিনাজপুর শহরে প্রায় ৩০/৩৫ হাজার ইজি বাইক চলাচল করছে।

কবে নাগাত এই লাইসেন্স বিহীন ইজি বাইক শহরে চলাচল বন্ধ হবে তার কোন সময়সীমা জানা নেই ভুক্তভোগী পৌরবাসীর। অবিলম্বে লাইসেন্স বিহীন ইজি বাইক বন্ধের দাবী দিনাজপুরবাসীর।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য