রংপুর জেলা প্রশাসন এর আয়োজনে ও রংপুর চেম্বার অব কমার্স এ্যান্ড ইন্ডাষ্ট্রি’র সার্বিক সহযোগিতায় ‘‘টেকসই উন্নয়ন ও প্রবৃদ্ধির জন্য উৎপাদনশীলতা’’ এ শ্লোগানটিকে সামনে রেখে সারা দেশের ন্যায় রংপুরে আজ পালিত হলো জাতীয় উৎপাদনশীলতা দিবস। এবারে দিবসটি উপলক্ষে রংপুরে সকালে বর্ণাঢ্য র‌্যালী ও জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে এক আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়।

রংপুরের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মোঃ রুহুল আমিন মিঞা এর সভাপতিত্বে আলোচনায় সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন রংপুরের জেলা প্রশাসক মুহাম্মদ ওয়াহিদুজ্জামান। এছাড়া বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন রংপুর চেম্বার অব কমার্স এ্যান্ড ইন্ডাষ্ট্রি’র সভাপতি মোস্তফা সোহরাব চৌধুরী টিটু।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে রংপুরের জেলা প্রশাসক মুহাম্মদ ওয়াহিদুজ্জামান বলেন, প্রতিযোগিতামূলক বিশ্বে টিকে থাকতে হলে দেশের সকল খাত বিশেষ করে শিল্পখাতে উৎপাদনশীলতা সর্বোচ্চ পর্যায়ে বাড়ানোর কোন বিকল্প নেই। জাতীয় অর্থনীতিতে উৎপাদনশীলতা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। তিনি বলেন, বর্তমান সরকার ২০২১ সালের মধ্যে বাংলাদেশকে একটি মধ্যম আয়ের দেশে পরিণত করতে বদ্ধপরিকর। এ লক্ষ্য অর্জনে আমাদের সকলকে একযোগে কাজ করতে হবে। শিল্প ও সেবাখাতসহ উৎপাদনের সকল স্তরে উৎপাদনশীলতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে মালিক-শ্রমিক-কর্মচারিদের উদ্বুদ্ধ ও উৎসাহিত করতে জাতীয় উৎপাদনশীলতা দিবসের বিভিন্ন কর্মসূচি সহায়ক ভূমিকা পালন করবে বলে তিনি মনে করেন।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে রংপুর চেম্বারের সভাপতি মোস্তফা সোহরাব চৌধুরী টিটু বলেন, ২০২১ সালের মধ্যে বাংলাদেশকে মধ্যম আয়ের দেশে এবং ২০৪১ সালে উন্নত সমৃদ্ধ দেশে পরিনত করতে হলে দেশের সকল সেক্টরে উন্নয়ন বেগবান করার পাশাপাশি উৎপাদনশীলতা বৃদ্ধি করতে হবে। তিনি ন্যাশনাল প্রোডাকটিভিটি অর্গানাইজেশন দেশের কলকারখানা ও শিল্প প্রতিষ্ঠানসমূহের উৎপাদনশীলতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে যুগোপযোগী প্রশিক্ষণ ও গবেষণার মাধ্যমে কারিগরি জ্ঞানে প্রশিক্ষিত ও দক্ষ জনবল গড়ে তোলার মাধ্যমে শিল্প, সেবা, কৃষিসহ সকলখাতে উৎপাদনশীলতা বৃদ্ধিতে সহায়ক ভূমিকা রাখবে বলে দৃঢ় আশাবাদ ব্যক্ত করেন। এছাড়া তিনি মেধাসম্পদের উৎকর্ষতা সাধনে কারিগরি জ্ঞান সমৃদ্ধ শিক্ষার প্রসার এবং গবেষণা ও উন্নয়নখাতের বিকাশে সরকারকে এগিয়ে আসার আহ্বান জানান।

আলোচনা সভা ও র‌্যালীতে সরকারি-বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তাবৃন্দ, রংপুর চেম্বার পরিচালনা পর্ষদের কর্মকর্তা ও পরিচালকবৃন্দ, প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিকবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য