উদ্বোধনের কয়েক ঘন্টা আগে পরীক্ষামূলকভাবে চালু করার পর ভারতের বিহার রাজ্যে ৩৮৯ কোটি রুপি ব্যয়ে নির্মিত একটি বাঁধের কিছু অংশ ধসে পড়েছে।

এতে রাজ্যটির ভাগলপুর শহরের একটি অংশ পানিতে তলিয়ে গেছে বলে জানিয়েছে এনডিটিভি।

বুধবার রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী নিতিশ কুমারের ‘বাতেশ্বরাস্থান গঙ্গা পাম্প ক্যানাল প্রজেক্ট’ নামের বাঁধটির উদ্বোধনের কথা ছিল। মঙ্গলবার বাঁধের কিছু অংশ ভেঙে পড়ার পর সন্ধ্যায় তার দপ্তর ‘প্রযুক্তিগত কারণে’ বাঁধের উদ্বোধন পেছানো হয়েছে বলে জানিয়েছে।

নির্মাণ শুরু হওয়ার ৪০ বছর পরে বাঁধটির নির্মাণ কাজ শেষ করা হয়েছিল। বিহার ও প্রতিবেশী রাজ্য ঝাড়খান্ডের কৃষিজমিতে সেচের ব্যবস্থা করতে ১৯৭৭ সালে প্রকল্পটি গ্রহণ করা হয়েছিল।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বিহারের পানি সম্পদ ও সেচমন্ত্রীরও উপস্থিত থাকার কথা ছিল।

পরীক্ষামূলকভাবে প্রকল্পটির পাম্প চালু করার পর গঙ্গা নদী থেকে আসা পানির চাপে ক্যানালের একটি দেয়াল ধসে যায়। এতে তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রের জন্য নির্ধারিত একটি এলাকার কিছু অংশসহ কাহালগাও গ্রাম প্লাবিত হয়ে যায়।

পানিতে সেচ প্রকল্পের খালের আশপাশে প্রায় তিন কিলোমিটার এলাকা প্লাবিত হয়ে গেছে বলে জানিয়েছেন বিহারের পানি সম্পদ মন্ত্রণালয়ের সচিব অরুণ কুমার সিং।

ভাগলপুর জেলার শীর্ষ কর্মকর্তারা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে নেওয়া উদ্যোগ তদারক করছে বলে জানিয়েছেন তিনি।

বিহার ও ঝাড়খান্ডের যৌথ উদ্যোগে নেওয়া প্রকল্পটির আওতায় ভাগলপুরের ১৮,৬২০ হেক্টর ও ঝাড়খান্ডের চার হাজার হেক্টর কৃষিজমি সেচের আওতায় আসার কথা রয়েছে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য