জনসম্মুখে চুলকানি বেশ অস্বস্তিকর ব্যাপার আবার এটাকে নিয়ন্ত্রণে রাখাও বেশ কষ্টকর।

স্বাস্থ্যবিষয়ক ওয়েবসাইটে প্রকাশিত প্রতিবেদন থেকে নিতম্বের নানান সমস্যা ও র‌্যাশের কারণ সম্পর্কে জানা যায়। সচেতনতার মাধ্যমে এই সমস্যার সমাধান করা সম্ভব।

মসলাযুক্ত খাবার: শরীরের সুস্থতার জন্য খ্যাদ্যাভ্যাস বেশ গুরুত্বপূর্ণ প্রভাব রাখে। যদি আপনি মসলাযুক্ত খাবার পছন্দ করেন তাহলে তার অস্বস্তিকর ফলাফল ভোগের জন্যও প্রস্তুত থাকতে হবে।

মসলাযুক্ত খাবারের পাশাপাশি অন্যান্য খাবার যেমন- টমেটো, কফি ইত্যাদি যখন অতিরিক্ত খাওয়া হয় তখন তা নিতম্বে চুলকানি সৃষ্টি করতে পারে।

হার্পিজ: এটা এক ধরনের ছোঁয়াচে রোগ যা নিতম্ব থেকে ত্বকে ছড়াতে পারে। বিশেষ করে যখন শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা কম থাকে তখন এটা বেশি দেখা দেয়। এই রোগে নিতম্বে লালচে ভাব ও চুলকানি দেখা দেয়। এই পরিস্থিতিতে চিকিৎসকের পরামর্শ নেওয়া জরুরি।

ফাঙ্গাসের সংক্রমণ: নিতম্বে এই ধরনের সমস্যা দেখা দেওয়ার অন্যতম কারণ ফাঙ্গাসের সংক্রমণ। সাধারণত আর্দ্র স্থানে এটা দেখা দেয়। এই সমস্যা থেকে মুক্তি পেতে হালকা গরম পানি দিয়ে আক্রান্ত স্থানটি পরিষ্কার করে নিন অথবা চিকিৎসকের পরামর্শ নিন।

শুষ্ক না থাকা: নিতম্ব আর্দ্র থাকলে অথবা তা শুষ্ক রাখার জন্য খুব জোড়ে ঘষাঘষি করলে তা চুলকানির সৃষ্টি করতে পারে। তাই হালকা চাপ দিয়ে শুকিয়ে নিন। খুব বেশি জোরে না ঘষে হালকা ভাবে মুছুন।

অর্শরোগ: এই রোগের কারণে মলদ্বারে রক্তনালীতে ফোলাভাব ও প্রদাহ দেখা দিতে পারে। এটা মল ত্যাগে অস্বস্তি সৃষ্টি করে, এই সমস্যা সমাধানে আঁশ বহুল খাবার খাওয়া উপকারী।

পরিষ্কার পরিচ্ছন্নতা: ব্যক্তিগত পরিষ্কার পরিচ্ছন্নতার অভাবে নিতম্বে এই ধরনের সমস্যা দেখা দিতে পারে। নিয়মিত গোসল করা না হলে এই সমস্যার বেশি দেখা দেয়। তবে সমস্যা গুরুতর হলে চিকিৎসকের পরামর্শ নিতে সংকোচ বোধ করবেন না।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য