ঘোড়াঘাটে পিয়াজ ,কাঁচা মরিচ সহ নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিশপত্রের দাম আকাশচুম্বি ঠেকেছে। গত সপ্তাহ থেকেই ঘোড়াঘাট পৌর বাজার ও এর আশপাশে পিয়াজের মুল্য বৃদ্ধিসহ ও কাঁচা মরিচ প্রকার ভেদে ১২০টাকা থেকে ১৫০টাকা কেজিতে বিক্রয় হচ্ছে। হঠাৎ করে পিয়াজ কাঁচা মরিচের আরেক দফা দাম বাড়ার কারণ খুঁজে পাওয়া যায়নি।

পিয়াজের দাম বাড়ার কারণ হিসেবে খুচরা বিক্রেতারা মহাজনকেই দায়ী করছেন। তারা জানান,হঠাৎ করেই পাইকারী বাজারে প্রতি কেজি পিয়াজের দাম ২০ টাকা বৃদ্ধি হওয়াতে এর প্রভাব খুচরা বাজারে পড়েছে। বাজার করতে আসা সাধারন ক্রেতাদের মধ্যে চরম ক্ষোভ দেখা গেছে। কুরবানীর ঈদে পিয়াজের ব্যবহার স্বাভাবিক কারনেই বেশি হয়ে থাকে।

বর্তমান চরম মুল্য বৃদ্ধির বাজারে পিয়াজ ক্রয় করতে আসা ক্রেতাদেরকে আরো দ্বিগুন টাকা গুনতে হচ্ছে। নিম্ম বিত্ত পরিবারগুলির নিকট বর্তমানে পিয়াজ ও মরিচ দু®প্রাপ্য হয়ে পড়েছে। শুধু পিয়াজ মরিচই নয় ঈদকে সামনে রেখে নিত্যপ্রয়োজনীয় সকল জিনিশ পত্রের দাম হু হু করে বাড়ছে।অস্বাভাবিক মুল্য বৃদ্ধিতেও সরকারীভাবে বাজার মনিটরিং এর কোন রকম ব্যবস্থা নাই।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য