গত ৫০ বছরের মধ্যে যুক্তরাষ্ট্রের টেক্সাস অঙ্গরাজ্যে আঘাত হানা সবচেয়ে শক্তিশালী ঝড়ে অন্তত একজন নিহত হয়েছেন।

শুক্রবার রাতে চার মাত্রার ঘূর্ণিঝড় হার্ভে ঘন্টায় ২০৯ কিলোমিটার বাতাসের বেগ নিয়ে টেক্সাস উপকূল অতিক্রম করে যুক্তরাষ্ট্রের প্রধান খনিজ তেল ও প্রাকৃতিক গ্যাস শিল্প এলাকায় তাণ্ডব চালায়।

১৯৬১ সালের পর থেকে অঙ্গরাজ্যটিতে আঘাত হানা সবচেয়ে শক্তিশালী ঘূর্ণিঝড়টি পরে ক্রান্তীয় ঝড়ে পরিণত হয়।

হার্ভের তাণ্ডবে সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত এলাকাগুলোতে তল্লাশি ও উদ্ধারকারী দল মোতায়েন করা হয়েছে, কিন্তু ঝড়টি এখন ব্যাপক বন্যার হুমকি তৈরি করছে বলে শনিবার জানিয়েছে কর্তৃপক্ষ।

হার্ভের আঘাতে ঘরবাড়ির ছাদ উড়ে যায়, গাছপালা উপড়ে পড়ে ও প্রায় আড়াই লাখ মানুষ বিদ্যুৎ বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়ে। হার্ভের প্রভাবে কোথাও কোথাও টর্নেডো ও আকস্মিক বন্যা দেখা দেয়।

ঝড়টির কারণে যুক্তরাষ্ট্রের তেল ও তরল জ্বালানির উৎপাদনও বিঘ্নিত হয়, সরবরাহ হ্রাস পাওয়ায় পাম্পগুলোতে জ্বালানির মূল্য বেড়ে যায়।

ধীরে ধীরে দেশের ভিতরের দিকে এগিয়ে যাওয়ার পথে ক্রমেই শক্তি হারাচ্ছে হার্ভে। কিন্তু এর প্রভাবে আগামী কয়েকদিন টেক্সাসের কোনো কোনো এলাকায় ১০২ সেন্টিমিটার (৪০ ইঞ্চি) বৃষ্টিপাত হতে পারে বলে পূর্বাভাস দেওয়া হয়েছে। এতে জনবহুল এলাকাগুলো নিমজ্জিত হয়ে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হতে পারে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

বৃষ্টিপাতের এই পূর্বাভাস অঙ্গরাজ্যটিতে সম্ভাব্য ‘বিপর্যয়’ তৈরি করতে পারে বলে বলে জানিয়েছে যুক্তরাষ্ট্রের জাতীয় ঘূর্ণিঝড় কেন্দ্র।

কেন্দ্রের মুখপাত্র ডেনিস ফেল্টজেন বলেছেন, “বৃষ্টিপাতের পরিমাণ ইঞ্চিতে না মেপে যখন ফুটে মাপতে হয় তখন নিশ্চিতভাবেই তা ব্যাপক বন্যার কারণ হতে পারে।”

শনিবার এক সংবাদ সম্মেলনে রকপোর্ট শহরের মেয়র চার্লস ওয়াক্স জানিয়েছেন, শুক্রবার রাতে ঘূর্ণিঝড়টি উপকূল ধরে এগিয়ে যাওয়ার সময় রকপোর্টের একটি বাড়িতে আগুন লেগে একজনের মৃত্যু হয়েছে।

হার্ভের প্রভাবে এই প্রথম একজনের নিশ্চিত মৃত্যুর খবর পাওয়া গেল। ঝড়টি সরাসরি এই শহরটিতে আঘাত হেনেছে। ঝড়টির তাণ্ডবে এখানে আরো বহু মানুষ আহত হয়েছেন বলে জানিয়েছেন শহরটির অপর এক কর্মকর্তা।

টেক্সাসের গভর্নর গ্রেগ অ্যাবোট শনিবার জানিয়েছেন, অঙ্গরাজ্যটির ক্ষতিগ্রস্ত এলাকাগুলোর আবর্জনা ও ধ্বংসস্তূপ পরিষ্কার করার জন্য তিনি সামরিক বাহিনীর এক হাজার ৮০০ সদস্যকে মোতায়েন করছেন এবং আরো এক হাজার লোক তল্লাশি ও উদ্ধার অভিযানে নিয়োজিত থাকবে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য