অশান্ত দার্জিলিংয়ে শান্তি ফেরাতে সর্বদলীয় বৈঠকের ডাক দিলেন ভারতের পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায়। আজ (মঙ্গলবার) রাজ্য সচিবালয় নবান্নে তিনি এক সংবাদ সম্মেলনে এ সংক্রান্ত ঘোষণা দেন।

দার্জিলিংয়ে পৃথক গোর্খাল্যান্ড রাজ্যের দাবিতে সেখানে ‘গোর্খা জনমুক্তি মোর্চা’র পক্ষ থেকে একটানা বনধ-অবরোধ কর্মসূচি পালনসহ সহিংস আন্দোলন চলছে। ওই ঘটনার অবসানের লক্ষ্যে গোর্খা ন্যাশনাল লিবারেশন ফ্রন্টের (জিএনএলএফ) পক্ষ থেকে মুখ্যমন্ত্রীকে চিঠি দিয়ে উচ্চপর্যায়ের বৈঠক ডাকার আবেদন জানানো হয়।

মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় জিএনএলএফের আবেদনকে স্বাগত জানিয়ে আগামী ২৯ আগস্ট বিকেল ৪ টায় নবান্নে পাহাড়ের সমস্ত রাজনৈতিক দলকে বৈঠকে যোগ দেয়ার আহ্বান জানিয়েছেন।

মুখ্যমন্ত্রী আজ বলেন, ‘পাহাড়ে অচলাবস্থা দূর করতে রাজ্য সরকার অত্যন্ত সচেষ্ট। পাহাড়ের গুরুত্বপূর্ণ রাজনৈতিক দল জিএনএলএফের পক্ষ থেকে সম্প্রতি রাজ্য সরকারকে চিঠি দিয়ে সর্বদলীয় বৈঠক আয়োজনের অনুরোধ জানানো হয়। সেই আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতেই সর্বদলীয় বৈঠক ডাকা হচ্ছে।’

মুখ্যমন্ত্রী বলেন, ‘যারা শান্তির পক্ষে তাদের সঙ্গে সরকার সবসময় আলোচনায় প্রস্তুত রয়েছে। পাহাড়ে অচলাবস্থা চালানোর চেষ্টা করছিল একপক্ষ। কিন্তু পুলিশ বিচক্ষণতার পরিচয় দিয়েছে। অশান্তিতে রাজ্য সরকারের অনেক ক্ষতিও হয়েছে। কিন্তু সরকার কখনো আলোচনার দরজা বন্ধ করবে না।’

মমতা বলেন, ধীরে ধীরে পাহাড়ের পরিস্থিতি স্বাভাবিক হচ্ছে। দোকানপাট খুলতে শুরু করেছে। মিরিকের পরিস্থিতিও স্বাভাবিক হচ্ছে। পাহাড়ের বিভিন্ন দল যদি আন্দোলনের পথ থেকে সরে আসে তাহলে শান্তি ফেরানো সহজ হবে বলেও মমতা মন্তব্য করেন।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য