দিলীপ কুমার ও শাহরুখ খানের মধ্যে সম্পর্কটা বেশ পুরনো আর একটু ভিন্ন। কারণ অভিনেতা নয়, তাদের সম্পর্কটা হলো বাবা-ছেলের। তাইতো অসুস্থ বাবাকে দেখতে তার বাড়িতে ছুটে গেলেন কিং খান।

মঙ্গলবার সন্ধ্যায় বাবার সঙ্গে দেখা করতে গিয়েছিলেন ‘চেন্নাই এক্সপ্রেস’খ্যাত এই তারকা। যার কয়েকটি স্থিরচিত্র সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম টুইটারে শেয়ার করেছেন দিলীপ কুমারের স্ত্রী সায়রা বানু। এর ক্যাপশনে তিনি লিখেছেন, ‘সাহেবের ডাকা ছেলে আজ তাকে দেখতে এসেছিলেন। সন্ধ্যার কিছু ছবি শেয়ার করা হলো।’

কিডনির সমস্যা ও ডিহাইড্রেশনের (পানি শূন্যতা) কারণে গত ২ আগস্ট মুম্বাইয়ের লীলাবতি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছিলো দিলীপ কুমারকে। সেখানে নিবিড় পর্যবেক্ষণ কেন্দ্রে (আইসিইউ) ছিলেন তিনি। পরে ৪ আগস্ট বলিউডের কিংবদন্তি এই অভিনেতার শারীরিক অবস্থার আরও অবনতি হলে তাকে হাসপাতালের ভেন্টিলেটরে (কৃত্রিম উপায়ে শ্বাসপ্রশ্বাস চালু রাখার যন্ত্র) রাখা হয়েছিলো। কিছুটা সুস্থ হলে ৯ আগস্ট হাসপাতাল থেকে ছাড়া পান তিনি।

দিলীপ কুমারের প্রকৃত নাম মোহাম্মদ ইউসুফ খান। রূপালি পর্দায় ক্যারিয়ার শুরুর সময় নাম পাল্টান তিনি। ছয় দশকের অভিনয় জীবনে ‘মধুমতি’, ‘দেবদাস’, ‘মুঘল-এ-আজম’, ‘গঙ্গা যমুনা’, ‘রাম অউর শ্যাম’, ‘কর্ম’র মতো অনেক ধ্রুপদী চলচ্চিত্রে দেখা গেছে তাকে।
দিলীপ কুমারকে বলা হয় বড়পর্দার ‘ট্র্যাজেডি কিং’। তাকে এই তকমা এনে দিয়েছে ‘আন্দাজ’, ‘বাবুল’, ‘মেলা’, ‘দিদার’, ‘যোগান’ প্রভৃতি চলচ্চিত্র। সর্বশেষ ১৯৯৮ সালে ‘কিলা’ ছবিতে অভিনয় করেন তিনি।

গত বছর ভারত সরকারের কাছ থেকে পদ্মবিভূষণ খেতাব পান দিলীপ কুমার। ১৯৯১ সালে তাকে দেওয়া হয় পদ্মভূষণ। এর তিন বছর পর তিনি পান দাদাসাহেব ফালকে অ্যাওয়ার্ড।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য