সুবল রায়, দিনাজপুর থেকেঃ একটানা ৫দিনের বৃষ্টি ও উজানের ঢলে দিনাজপুর জেলার বিরল, বোচাগঞ্জ, খানসামা, পার্বতিপুরসহ ১৩ টি উপজেলায় বন্যার পানি ঢুকতে শুরু করেছে। পুর্ণভবা, টাংগণ, আত্রাইসহ সবকটি নদী প্রায় ভরপুর। একদিকে টানা ৫দিনের বৃষ্টি অপর দিকে ভারতীয় ঢলের পানিতে ডুবে গেছে ধানের জমি, ঘরবাড়ী ও মানুষের সম্পদ। গবাদিপশু খাবারের অভাবে অনাহারে আছে।

অন্যদিকে দিনমুজুর ও খেটেখাওয়া মানুষেরা বৃষ্টির জন্য বের হতে পারছেনা। ফলে তারাও আছে অনাহারে। এদিকে বিরল উপজেলার পুর্ণভবা নদীর ভাঙ্গনে উপজেলার রাজারামপুর, আজিমপুর, ফরাক্কাবাদ ও ধামইড় ইউনিয়নে বন্যার পানি ঢুকতে শুরু করেছে। আটকা পড়ে আছে কয়েকটি গ্রাম। তাদেরকে উদ্ধারের চেষ্টা চলছে।

দিনাজপুর শহরে পানি ঢুকতে শুরু করেছে এবং বৃষ্টির পানিতে দেখা দিয়েছে জলাবদ্ধতা। শহরের পাটুয়াপাড়া, পিটিআই মোড়, বালুয়াডাঙ্গাসহ বিভিন্ন এলাকার রাস্তা পানি জমে থাকার ফলে পথচারী ও যানবাহন চলাচলে দেখা দিয়েছে বিরম্বনা। স্কুল, কলেজ, মাদ্রাসা এবং শিক্ষা প্রতিষ্ঠানেও জলাবদ্ধতাও সৃষ্টি হয়েছে। আক্রান্ত এলাকার মানুষ এখন অন্নত্র নিরাপদ আশ্রয়ের জন্য স্থান খুচছে।

এই মুহুর্তে স্কুল কলেজ ও মাদ্রাসা গুলিকে আশ্রয়হীনদের জন্য খুলে দিতে হবে বলে অভিজ্ঞ মোহল মনে করেন। বৃষ্টির পানি উজান থেকে নেমে আসা পানির ঢলে মাঝাডাঙ্গা, কাঞ্চনঘাট, বালুয়াডাঙ্গা, লালবাক ও সিটিপার্ক এলাকার ঘরবাড়ী প্লাবিত হয়েছে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য