মোঃ লিহাজ উদ্দীন মানিক, বোদা (পঞ্চগড়) থেকেঃ পঞ্চগড় জেলা সহ বোদা উপজেলায় বন্যার পরিস্থিতি অপরিবর্তিত। গত বৃহস্পতিবার থেকে ৩ দিনের টানা বৃষ্টি ও ভারতীয় পানির ঢলে বোদা উপজেলার বোদা পৌর সভা সহ ১০টি ইউনিয়নের বন্যার পানিতে অনেক ঘরবাড়ি ডুবে গেছে।

বিশেষ করে করতোয়া নদীর পানি বিপদ সীমার উপর দিয়ে প্রবাহিত হওয়ায় বড়শশী, কালিয়াগঞ্জ ও মাড়েয়া ইউনিয়নের মানুষ বেশি বন্যার কবলে পড়েছে। গতকাল শনিবার সকাল থেকে মানুষ জন বন্যার কবল থেকে বাঁচার জন্য আশ্রয় কেন্দ্রে অবস্থান নিয়েছে। বোদা পৌরসভার সাতখামার, ইসলামবাগ, থানাপাড়া, ঝিনাইকুড়ি, বগুলাডাঙ্গী, কলেজপাড়া ভাসাইন গড়ের মানুষ জন বোদা পাইলট মডেল স্কুল এন্ড কলেজ, পাথরাজ কলেজ ও বোদা মহিলা কলেজের আশ্রয় কেন্দ্রে অবস্থান নিয়েছে।

আকষ্কিক এ বন্যায় অনেক ঘর বাড়ি ভেঙ্গে গেছে, রাস্তা ঘাট, ব্রিজ নষ্ট হয়ে গেছে, গাছপালা, পুকুরের মাছ সব বন্যায় পানিতে ভেসে গেছে, রোপা আমন ক্ষেতে বন্যার তলিয়ে গেছে। উপজেলা প্রশাসন ও বোদা পৌর সভার পক্ষে বন্যায় আক্রান্ত মানুষের মাঝে শুকনা খাবার ও ত্রাণ বিতরণ করা হচ্ছে। উপজেলার প্রত্যেকটি ইউনিয়নের ইউ’পি চেয়ারম্যান সহ এলাকার গণমান্য ব্যক্তিবর্গ শুকনা খাবারসহ ত্রাণ বিতরণ করছেন।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার সৈয়দ মাহমুদ হাসান, উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান সফিউল্লাহ সুফি, ভাইস-চেয়ারম্যান আসাদুল্লাহ আসাদ, মহিলা ভাইস-চেয়ারম্যান মোছাঃ লাইলী বেগম, জাসদ কেন্দ্রীয় কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক এমরান আল আমিন বন্যায় আক্রান্ত মানুষের পাশে এসে দাড়িয়েছেন এবং সাহায্য সহযোগিতা করছেন।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য