পিত সাগরে সামরিক মহড়া চালানোর মধ্য দিয়ে কোরিয় উপকূলে যুদ্ধের জন্য প্রস্তুত রয়েছে বলে ‌আভাস দিয়েছে চীন। সাউথ চায়না মর্নিং পোস্টকে এ কথা বলেছেন অস্ট্রেলিয়ান স্ট্রাটেজিক পলিসি ইন্সটিটিউটের ম্যালকম ডেভিস।

উত্তর কোরিয়ার কয়লা, সীসা এবং লোহা রফতানির বিরুদ্ধে ১০০ কোটি ডলারের নিষেধাজ্ঞা আরোপের পরই এ মহড়া চালানো হয়। পিত সাগরের মহড়ায় প্রায় ১২টি সামরিক অনুশীলন চালিয়েছে বেইজিং।

ডেভিস বলেন, এর মধ্য দিয়ে বেইজিং আভাস দিয়েছে যে ওই এলাকায় যুদ্ধ বেধে গেলে কার্যকর ভূমিকা পালন করবে চীন। সিঙ্গাপুরের নানিয়াং প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের করিন কোহ বলেন, এ বার্তা কেবলমাত্র পিয়ংইয়ংকে দেয়া হয়নি।

এদিকে, রয়্যাল ইউনাইটেড সার্ভিস ইন্সটিটিউটের পিটার রবার্টস জানান, চীনা নৌশক্তি উল্লেখযোগ্যভাবে বাড়ছে। গত সপ্তাহেই চীনা নৌবহরে যুক্ত হয়েছে একটি দৈত্যাকার জাহাজ। কোনো দেশের নৌ ইতিহাসে এতো দ্রুতবেগে শক্তি বাড়ানোর নজির প্রায় নেই বলেই জানান পিটার রবার্টস।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য