আজিজুল ইসলাম বারী,লালমনিরহাট প্রতিনিধি: লালমনিরহাটের আদিতমারীতে স্কুলছাত্র পাচারের চেষ্টার অভিযোগে সাইফুল ইসলাম (৬০) নামে এক ব্যক্তিকে আটক করেছে পুলিশ। আটক সাইফুল ইসলাম ওই উপজেলার আদিতমারী ডিগ্রি কলেজ পাড়ার আবদার রহমানের ছেলে।

আটকের পর মঙ্গলবার রাত সাড়ে ৮ টার দিকে আদিতমারী থানায় সাইফুল ইসলাম ও তার ছেলের বিরুদ্ধে একটি মামলা করা হয়েছে।পুলিশ ও স্থানীয়রা জানান, সোমবার বিকেলে উপজেলা সদরের বসিনটারী গ্রামের তোজাম্মেল হকের ছেলে ভাদাই মডেল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের তৃতীয় শ্রেণির ছাত্র মাজেদুল ইসলাম মামুন (০৯) বিদ্যালয় মাঠে সহপাঠীদের সঙ্গে খেলছিল। খেলা শেষে মাঠ ত্যাগ করতে অপরিচিত দুইজন ব্যক্তি পেছন দিক থেকে মুখে রুমাল দিয়ে চেপে ধরে অপহরণ করে শিশু মামুনকে।

এরপর সজ্ঞাহীন মামুন কিছুই বলতে পারেনি। সন্ধ্যা পেরিয়ে রাত হলেও ছেলে বাড়ি না ফেরায় বিভিন্ন স্থানে খোঁজাখুঁজি শুরু করে তার পরিবার।রাত সাড়ে ৮টার দিকে মামুন জ্ঞান ফিরে দেখতে পায় দরজা জানালাহীন টিনশেড একটি ঘরে বন্দি সে। পরে বেড়া ভেঙে পালিয়ে আসতে সক্ষম হয় মামুন।বাড়ি ফিরে মামুন ঘটনার বর্ণনা দিলে স্থানীয়রা তাকে সঙ্গে নিয়ে ওই বাড়িতে গিয়ে দেখতে পান বাড়িটি একদম নির্জন স্থানে। আদিতমারী ডিগ্রি কলেজ পাড়ার ওই বাড়িটির মালিক সাইফুল ইসলামের ছেলে এরশাদ মিয়া।

এ ঘটনায় এরশাদ পলাতক থাকায় স্থানীয়রা ওই বাড়িতে থাকা এরশাদের বাবা সাইফুল ইসলামকে আটক করে থানা পুলিশে সোপর্দ করেন।আদিতমারী থানার ওসি হরেশ্বর রায় ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য