ঠাকুরগাঁওয়ের বালিয়াডাঙ্গী উপজেলার স্কুলবস্তি গ্রামে কিশোরী রূপসী আক্তার (১৬) গলায় দড়ি পেঁচিয়ে ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছেন।

সোমবার বালিয়াডাঙ্গী উপজেলার আমজানখোর ইউনিয়নে স্কুলবস্তি গ্রামে দিনমজুর ইলিয়াস আলীর ৫ম কন্যা রূপসী আক্তার সকালবেলা তার ছোট বোনের সাথে ঝগড়া সৃষ্টি হলে শয়ন ঘরে প্রবেশ করলে দরজা বন্ধ করে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেন তিনি।

পরিবার সূত্রে জানা যায়, নিহতের পিতা-মাতা প্রতিদিনের ন্যায় সকালবেলা বাড়ী হতে বের হয়ে মাঠে কাজে গেলে ছোট বোন দুলালী’র সঙ্গে তার কথা কাটাকাটি হলে একপর্যায়ে রূপসী আক্তার অভিমান করে শয়ন ঘরের দরজা বন্ধ করে গলায় দড়ি দিয়ে আত্মহত্যা করে। সংবাদ পেয়ে পিতা-মাতা বাড়ী এসে ঘরে প্রবেশ করতে গেলে দরজা বন্ধ থাকায় দরজা ভেঙ্গে ভিতরে প্রবেশ করলে তাকে সিলিং এ ঝুলন্ত অবস্থায় দেখতে পাই। তাৎক্ষনিক ভাবে প্রতিবেশীরা এগিয়ে আসলে সবাই তাকে মৃত অবস্থা ফাঁস থেকে নামিয়ে নিয়ে আসে।

এ ব্যাপারে ইউ’পি চেয়ারম্যান আকালু (ডংগা)’র কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন দিনমজুর ইলিয়াস আলী অতিশয় গরীব ব্যক্তি হওয়ায় ছোট বোনের সাথে ঝগড়ার কারণে এ ঘটনা ঘটেছে।

থানার কর্মকর্তা ইনচার্জ মোস্তাফিজার রহমান আমাদের প্রতিনিধিকে জানান ময়না তদন্তের প্রয়োজন হলে করা হবে তবে এ ঘটনায় বালিয়াডাঙ্গী থানায় একটি অপমৃত্যু মামলা দায়ের করা হয়েছে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য