মাসুদ রানা পলক, ঠাকুরগাঁও থেকেঃ ঠাকুরগাঁওয়ের রানীশংকৈল উপজেলার ৩নং হোসেনগাঁওয়ে ১৩ তারিখে স্থগিত থাকা ইউনিয়নে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়, কারচুপির অভিযোগ এনে এই নির্বাচন বাতিল তথা পুণ্য নির্বাচন চেয়ে বিক্ষোভ করেছেন হোসেনগাও ইউনিয়ন এর সাধারন ভোটারা।

এ সময়ে অন্যানের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, উপজেলা আওয়ামী সভাপতি মোঃ সহিদুল হক, সাম্পাদক -তাজউদ্দিন, পৌর সভাপতি জাহাঙ্গীর আলম, ও নৌকা প্রতিকে হোসেনগাঁও ইউনিয়ন চেয়ারম্যান প্রার্থী গোলাম রব্বানী এবং আওয়ামী সংগঠনের বিভিন্ন স্তরের নেতা কর্মীবৃন্দ ।

উক্ত নির্বাচন সুষ্ঠ সুন্দর ভাবে পরিচালনা হয়নাই, বাদ সাধে নির্বাচনি ফলাফল ঘোষনার সময়েও। অনেকেই ভোট দিতে পারেনাই, এবং ভোট কেন্দ্রে ভোটের ফলাফল ঘোষনা না করেই উপজেলা নির্বাচন অফিসে এসে তার ফলাফল দেওয়ার অভিযোগ করেন হোসেনগাঁও ইউনিয়ন চেয়ারম্যান প্রার্থী গোলাম রব্বানী সাহেব তিনি আর ও বলেন তিনাকে ফলাফল ঘোষনার সময়ে উপজেলা নির্বাচন অফিস থেকে বেড়ও করে দেওয়া হয়েছে কয়েক বার। তার অভিযোগের কপি গ্রহন করা হয়নি।

এদিকে জানাযায় একই ইউনিয়ন, নয়নপুর ৬ নং ওয়াডের মোঃ দবিরুল ইসলাম তিনার পরিবারের মোট ভোটার সংক্ষা ৩৮জনের মধ্যে ১১ জন ভোট দিয়েছেন আর বাকিরা ভোট দিতে পারে নাই লিস্টে মাইগেন দেখানো হয়েছে, স্ত্রী ভোট দিয়েছেন আর স¦ামীর ভোটার লিস্টে মাইগেন দেখানো হয়েছে। এটা কিভাবে সম্বব হয়। ৫নং ওয়াডেও একই রকম ঘটনা ১২৬ জন আদিবাসী ভোট দিতে পারে নাই। লিস্টে তাদেরও মাইগেন দেখানো হয়েছে,

এনির্বাচনী ফলাফল তথা পুরো নির্বাচনকে বাতিলের জোর অনুরোধ জানিয়েছেন বিক্ষুদ্ধ জনতা হোসেনগাঁওয়ের এলাকা বাসী।

এ ব্যাপারে উপজেলা নির্বাচন অফিসার মোঃ তকদির আলী সরকারকে এর সাথে কথা বলার চেস্টা কালে তাকে মুঠোফোনে তাকে পাওয়া যায়নি।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য