প্রতিবারের মতো এবারও দর্শকপ্রিয়তার শীর্ষে থাকা অন্যতম ঈদ অনুষ্ঠান ‘কৃষকের ঈদ আনন্দ’ প্রচার হবে চ্যানেল আইয়ের পর্দায়। এবারের অনুষ্ঠানটি ধারণ করা হয়েছে মুন্সীগঞ্জের লৌহজং উপজেলার দক্ষিণ হলদিয়ায় পদ্মার পাড়ে। এই স্থান নির্ধারণের একটি বিশেষ কারণ রয়েছে।

অদূরেই নির্মাণ চলছে গর্বের পদ্মাসেতুর। যা বাংলাদেশের সক্ষমতার এক প্রতীক। এই সেতুর নির্মাণ পাল্টে দিচ্ছে পদ্মার পাড়ের কৃষি, অর্থনীতি, সমাজ, প্রতিবেশ। সেখানকার মানুষের চোখে মুখে পরিবর্তনের রঙ, নতুন স্বপ্ন।

দক্ষিণ হলদিয়া ও আশেপাশের গ্রাম থেকে দলবেঁধে কৃষকরা সানন্দে অংশগ্রহণ করেছেন ‘কৃষকের ঈদ আনন্দ’-এর বিভিন্ন খেলায়। কিশোর থেকে বৃদ্ধ, কিশোরী থেকে গ্রামের বঁধূ দাঁড়িয়ে যান কৃষকের ঈদ আনন্দের আয়োজনের অংশীদার হতে।

কৃষকদের অংশগ্রহণে ঐতিহ্যবাহী বালিশ লড়াই, তেল মাখা কলাগাছে চড়া, মোরগ লড়াই প্রভৃতি খেলাতো থাকছেই। আছে গ্রামীণ সব খেলাধুলা যা রঙিন করেছে আমাদের শৈশব লালিত স্মৃতি, এবারের ‘কৃষকের ঈদ আনন্দে’ তারই বর্ণিল ছটা তুলে আনার চেষ্টা করা হয়েছে দারুণভাবে।

যেন দর্শকও ফিরে যেতে পারে আর একবার শিকড়ে, ফেলে আসা দিনগুলোর কাছে। আরো আছে মুন্সিগঞ্জ জেলার নানা ঐতিহ্য, পদ্মাসেতু ও বিদেশে ধারণ করা মজার সব বিষয় নিয়ে নানা প্রতিবেদন। শাইখ সিরাজের পরিকল্পনা, পরিচালনা ও উপস্থাপনায় ‘কৃষকের ঈদ আনন্দ’ প্রচার হবে ঈদের পরদিন বিকেল সাড়ে ৪টায়।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য