পাকিস্তানের বেলুচিস্তানে সন্ত্রাস বিরোধী অভিযানে তাকফিরি সন্ত্রাসীগোষ্ঠী দায়েশের আট থেকে নয় শীর্ষস্থানীয় কমান্ডার নিহত এবং অনেকে গ্রেফতার হয়েছে। এ ছাড়া অভিযানে পাকিস্তান সেনাবাহিনীর তিন সেনা কর্মকর্তাসহ সাতজন আহত হয়েছে। আহতদের মধ্যে দুই সেনার অবস্থা মারাত্মক বলে জানা গেছে।

গোয়েন্দা সূত্রে পাওয়া খবরের ভিত্তিতে বেলুচিস্তানের মাসতাং এলাকায় এ অভিযান চালানো হয়েছিল। অভিযানে আইএস নামে পরিচিত দেশটিতে দায়েশের শীর্ষ পর্যায়ের নেতারা নির্মূল হয়েছে বা ধরা পড়েছে।

গত মাসের ২৪ তারিখে কোয়েটা থেকে অপহৃত চীনা ভাষার দুই প্রশিক্ষককে এ এলাকায় লুকিয়ে রাখা হয়েছে বলে গোয়েন্দা সূত্রে পাওয়া খবরের ভিত্তিতে এ অভিযান শুরু করা হয়। অপহরণের কাজে ব্যবহৃত গাড়ি নিরাপত্তা বাহিনী উদ্ধার করতে পেরেছে বলে জানা গেছে।

প্রাপ্ত খবরে আরো বলা হয়েছে, অভিযান শুরুর সময়ে পাকিস্তানের নানা অংশ থেকে আগত দায়েশ নেতারা মাসতাংয়ে বৈঠকে মিলিত হয়েছিলেন। দায়েশের আট থেকে নয় জন নেতা নিহত এবং বাকিদের আটক করার খবর পাওয়া গেছে। অবশ্য নিহত কমান্ডারদের নাম তাৎক্ষণিক ভাবে জানা যায়নি।

পাকিস্তানের সংবাদ মাধ্যমে প্রকাশিত খবরে বলা হয়েছে, ওই এলাকার গুহার অনেক ভেতরে অপহৃত দুই ব্যক্তিকে আটকে রাখা হয়েছে। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত ওই এলাকায় সংঘর্ষ অব্যাহত ছিল।

অভিযানের বিষয়ে কঠোর গোপনীয়তা বজায় রাখা হয়েছিল। অভিযান  শুরুর খবর প্রকাশ করা হয়নি। পাক সেনাবাহিনীর জনসংযোগ বিভাগ আইএসপিআর এখনো এ অভিযান সম্পর্কে কোনো মন্তব্য করেনি।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য