দিনাজপুর সংবাদাতাঃ “তামাক উন্নয়নের অন্তরায়”-এই শ্লোগানকে সামনে রেখে ৩০ মে মঙ্গলবার দিনাজপুর পৌরসভার সম্মুখ সড়কে তামাক নিয়ন্ত্রণ কোয়ালিশন দিনাজপুর ও ডেভেলপমেন্ট কাউন্সিল (ডিসি)’র  আয়োজনে তামাকের মূল্যস্তরভিত্তিক কর প্রথা বাতিলের দাবীতে মানববন্ধন ও জেলা প্রশাসক এবং সিভিল সার্জন বরাবর স্মারকলিপি প্রদান করা হয়।

মানববন্ধন কর্মসূচীর উদ্বোধন করতে গিয়ে প্রধান অতিথি দিনাজপুর পৌরসভার মেয়র সৈয়দ জাহাঙ্গীর আলম বলেন তামাক ও তামাকজাত পণ্য স্বাস্থ্যের জন্য হানিকর। তা সত্ত্বেও বাংলাদেশে ৪৩ শতাংশ অর্থাৎ ৪ কোটি ১৩ লক্ষ প্রাপ্ত বয়স্ক মানুষ তামাক সেবন করেন। তামাক ব্যবহারজনিত রোগে দেশে প্রতি বছর প্রায় ১ লক্ষ মানুষ অকাল মৃত্যু বরন করে। পৃথিবীর যে সব দেশে তামাক পণ্যের দাম অত্যন্ত সস্তা বাংলাদেশ তার মধ্যে অন্যতম।

তামাকের মূল্যস্তরভিত্তিক কর প্রথা বাতিলের জন্য জোরদাবী জানাচ্ছি। স্বাগত বক্তব্য রাখেন ডিসি, বিরামপুর এর নির্বাহী পরিচালক মোঃ হাফিজুর রহমান। মানববন্ধন ও স্মারকলিপি প্রদান অনুষ্ঠানে তামাক নিয়ন্ত্রণ কোয়ালিশন দিনাজপুরের সভাপতি মোঃ তৈমুল ইসলাম, ইউনিটি ফর এনজিও’স -এর সাধারণ সম্পাদক মোঃ শাহাদৎ হোসেন শাহ, বিবিডিএসএর নির্বাহী পরিচালক মোঃ জিল্লুর রহমান, অনুঘটক সংস্থার নির্বাহী পরিচালক মোঃ আনোয়ারুল ইসলাম বাবলু।

ব্রিসডো পরিচালক মির্জা ওবায়দুর রহমান, এসআইডিপি’র নির্বাহী পরিচালক মোঃ আফসার আলী, মমতা পল্লী উন্নয়ন সংস্থার নির্বাহী পরিচালক মোঃ ইয়াকুব আলী, উদ্যোগ সংস্থার প্রোগ্রাম অফিসার নেজাবত হোসেন, কারিতাসের টেকনিক্যাল অফিসার বাবলু মুর্মূ, প্রতিবন্ধী বিদ্যালয় ও পুনবার্সন সংস্থার সাধারণ সম্পাদক বিলকিস আরা ফয়েজ ও এনএনএন ফাউন্ডেশনের পরিচালক আব্দুল হামিদ উপস্থিত ছিলেন। দাবীতে বলা হয় সিগারেটের ক্ষেত্রে মূল্যস্তরভিত্তিক কর প্রথা, বিড়ির ক্ষেত্রে ট্যালিফ ভ্যালু এবং গুল-জর্দ্দার ক্ষেত্রে এক্স ফ্যাক্টরী প্রথা প্রভৃতি বাতিল করে পণ্যের / কৌটা প্রতি কার্যকরভাবে নির্দিষ্ট পরিমাণ স্পেসিফিক এক্সাইজ ট্যাক্স

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য