মিশরের যুদ্ধবিমানগুলো লিবিয়ার কয়েকটি ‘সন্ত্রাসী প্রশিক্ষণ শিবিরে’ হামলা করেছে। রাজধানী কায়রোতে অজ্ঞাত পরিচয় বন্দুকধারীদের হামলায় ২৮ কপ্টিক খ্রিস্টান নিহত হওয়ার পরই এ হামলা চালানো হলো।

মিশরের রাষ্ট্রীয় টেলিভিশনের খবরে বলা হয়েছে, প্রশিক্ষণ শিবিরগুলোর ওপর অন্তত ছয় দফা বিমান হামলা করা হয়েছে। লিবিয়ার পূর্বাঞ্চলীয় নগরী দেমায় এ সব হামলা করা হয়।

খবরে আরো দাবি করা হয়েছে, কায়রোর হামলায় এ সব শিবিরবাসীরা জড়িত ছিল বলে নিশ্চিত হওয়ার পরই বিমান হামলা করা হয়। কপ্টিক খ্রিস্টানদের ওপর হামলার কয়েক ঘণ্টা পরই টেলিভিশন ভাষণের মিশরের প্রেসিডেন্ট আবদেল ফাত্তাহ আস-সিসি বলেছিলেন, মিশরের ভেতরে বা বাইরে সন্ত্রাসীদের লালন করা হয় বা প্রশিক্ষণ দেয়া হয় এমন কোনো শিবিরে হামলা করতে দ্বিধা করা হবে না।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য