ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী টেরেসা মে সতর্ক করে দিয়ে বলেছেন, সোমবারের হামলার পর ব্রিটেনে আরো সন্ত্রাসী হামলার আশঙ্কা রয়েছে। ফলে, দেশটিতে সন্ত্রাসী হামলার হুমকি সংক্রান্ত সতর্কতার মাত্রা বাড়িয়ে সর্বোচ্চ পর্যায়ে অর্থাৎ ‘ক্রিটিক্যাল’ বা ‘সংকটপূর্ণ’ বলে ঘোষণা করা হয়েছে। খবর এএফপি’র।

সেই সঙ্গে নিরাপত্তা জোরদার করতে দেশটির গুরুত্বপূর্ণ সব স্থাপনায় পুলিশের পরিবর্তে সেনা মোতায়েনের সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। এএফপি’র একজন আলোকচিত্রী জানিয়েছেন, সেনাবাহিনীর একটি ইউনিট ইতোমধ্যে পাহারার দায়িত্ব পালন করতে পার্লামেন্ট ভবনের দিকে যাত্রা শুরু করেছে।

মিসেস মে বলছেন, শঙ্কার মূল কারণ, সন্দেহভাজন হামলাকারী সালমান আবেদি একাই এ হামলা চালিয়েছে, নাকি এর পেছনে আরো মানুষ সক্রিয়ে রয়েছে তা এখনো পর্যন্ত নিশ্চিত হওয়া যায়নি। এদিকে, সোমবারের কনসার্টে যে ব্যক্তি আত্মঘাতী হামলা করেছিল ইতোমধ্যেই তার পরিচয় প্রকাশ করা হয়েছে। বলা হচ্ছে, সন্দেহভাজন হামলাকারীর নাম সালমান আবেদী।

লিবীয় বংশোদ্ভূত ২২ বছর বয়সী এই মুসলিম তরুণ ম্যানচেস্টার শহরেই জন্মেছেন ও বেড়ে উঠেছেন। নিরাপত্তা বাহিনী বলছে, সালমান আবেদী এই হামলার মাত্র কয়েকদিন আগেই বিদেশ থেকে দেশে ফিরেছিলেন। বহু বছর ব্রিটেনে বসবাসের পর তার পরিবার লিবিয়ায় ফিরে গেছেন বলে ধারণা করা হচ্ছে। এর আগে ইসলামিক স্টেট গ্র“প দাবি করেছে, তাদের একজন সমর্থক এই হামলা চালিয়েছে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য