আরিফ উদ্দিন, গাইবান্ধা থেকেঃ গাইবান্ধা সদর উপজেলার কুপতলার বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব হাফেজিয়া নুরানী ক্যাডেট মাদ্রাসার নামকরণে দানকৃত ১৮ শতাংশ জমি বেআইনীভাবে জবর দখলের অভিযোগ পাওয়া গেছে।

মঙ্গলবার গাইবান্ধা প্রেসক্লাবে এক সংবাদ সম্মেলনে পূর্ব দুর্গাপুর গ্রামে ওই জমি উদ্ধার এবং মাদ্রাসাটি অবিলম্বে চালু করাসহ জেলা প্রশাসন ও পুলিশ প্রশাসনের কাছে প্রতিকার দাবি জানিয়েছেন। এদিকে মাদ্রাসার ওই জমি নিয়ে বিরোধের জের ধরে প্রতিপক্ষের হুমকিতে ইসরাফিল ও তার পরিবার-পরিজন চরম নিরাপত্তাহীনতায় পালিয়ে বেড়াচ্ছেন।

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত অভিযোগে উল্লেখ করা হয়, ইসরাফিল শেখের পিতা নুরুজ্জামান শেখ লালু ১৮ শতাংশ জমি ১৬ ফেব্র“য়ারি ওই মাদ্রাসার নামকরণের জন্য দানপত্র দলিল করে দেন।

জমি দান করে দেয়ার পর তার জ্ঞাতি ভাতিজা প্রয়াত আলেক উদ্দিনের ছেলে আশরাফুল, মেকাইল হোসেন ও ভাগিনা কছির মোল্লার ছেলে মোহাম্মদ আলী তাদের সহযোগি সন্ত্রাসীদের নিয়ে জমিটি জবর দখল করে নেয় এবং জমিতে থাকা বিভিন্ন প্রজাতির গাছ কর্তন করে এবং সংলগ্ন পুকুরের মাছ ধরে নিয়ে গিয়ে বাজারে বিক্রি করে দেয়।

জমিটি জবর দখল করে নেয়ার ফলে কূপতলার বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব হাফেজিয়া নুরানী ক্যাডেট মাদ্রাসার কার্যক্রম বন্ধ হয়ে যায়।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য