রংপুর রেঞ্জের ডিআইজি খন্দকার গোলাম ফারুক (বিপিএম, পিপিএম) বলেছেন এমপি লিটন হত্যাকারীদের দ্রুত খুঁজে বের করা হবে। পুলিশ এ বিষয়ে আন্তরিকতার সাথে কাজ করছে। বৃহস্পতিবার সকালে রংপুর শহরে সিসি ক্যামেরা স্থাপনের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে এ কথা বলেন তিনি।

ডিআইজি বলেন, জাপানি নাগরিক হোশি কুনিও হত্যাকান্ডের মতই এটি একটি চাঞ্চল্যকর ও ক্লুলেছ হত্যাকান্ড। পুলিশ যেভাবে জাপানি নাগরিক হত্যাকান্ডের রহস্য উদঘাটন করেছে ঠিক সেভাবেই এমপি লিটন হত্যার রহস্যও উদঘাটন করবে। কিছুটা সময় নিয়ে হলেও প্রকৃত খুনীদের খুঁজে বের করে আইনের আওতায় আনতে পুলিশ বদ্ধপরিকর। আশা করছি শিগগির এ বিষয়ে সব কিছু জানা যাবে।

তিনি বলেন, অপরাধ নিয়ন্ত্রণ ও যানজট নিরসনে অনেক জায়গায় সিসি ক্যামেরা স্থাপন করা হয়েছে। এরই ধারাবাহিকতায় রংপুরেও এর উদ্যোগ গ্রহন করা হয়েছে। আমরা মনে করি এতে করে আইনশৃঙ্খলার উন্নতিসহ ট্রাফিক নিয়ন্ত্রণ সহজ হবে। পরবর্তীতে শহরের গুরত্বপূর্ণ সকল পয়েন্টে সিসি ক্যামেরা স্থাপন করা হবে বলেও উল্লেখ করেন তিনি।

এর আগে শহরের ডিসির মোড় এলাকায় সিসি ক্যামেরা স্থাপনের উদ্বোধন করেন ডিআইজি। এসময় অতিরিক্ত ডিআইজি বশির আহমেদ পিপিএম (বার), অতিরিক্ত ডিআইজি চৌধুরী মঞ্জুরুল কবির পিপিএম (বার), পুলিশ সুপার মিজানুর রহমান, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সার্কেল-এ) সাইফুর রহমান, কোতয়ালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এবিএম জাহিদুল ইসলামসহ পুলিশের অন্যান্য কর্মকর্তাবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

উল্লেখ্য, অপরাধ নিয়ন্ত্রণের লক্ষ্যে জেলা পুলিশের ব্যবস্থাপনায় নগরীর গুরত্বপূর্ণ পয়েন্টে সিসি ক্যামেরা স্থাপন করা হবে। প্রথম পর্যায়ে শহরের মেডিকেল মোড়, বাংলাদেশ ব্যাংক মোড়, ডিসির মোড়, পায়রা চত্বর ও জাহাজ কোম্পানি মোড়ে ১২টি ক্যামেরা স্থাপন করা হচ্ছে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য