ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী বিএসএফ প্রায় নিখুঁত ভাবে জাল করা ২০০০ রুপির নোটের চালান আটক করেছে। জাল এ সব নোটে নিরাপত্তা ব্যবস্থার অর্ধেকর বেশি নিপুণ ভাবে বসানো বা নকল করা হয়েছে। জাল নোটের এ সব চালান পশ্চিমবঙ্গের মালদা জেলার কাছে থেকে আটক করা হয়েছে।

মালদায় গত ডিসেম্বর থেকে চলতি বছরের জানুয়ারির মাঝামাঝি আটক করা জাল নোটে  আসল ২০০০ রুপির জলছাপ, উভয়পাশের জ্যামিতিক নকশা, বিশেষ ধরণের নম্বর ব্যবস্থা রয়েছে। এ সব ব্যবস্থা এতোটাই দক্ষতার সঙ্গে নকল করা বা বসানো হয়েছে যে চট করে তা শনাক্ত করাও বেশ কঠিন হয়ে দাঁড়িয়েছে। ২০০০ রুপির জাল নোট ছাপতে অত্যাধুনিক কালিও ব্যবহার করা হয়েছে বলে ভারতীয় এক নিরাপত্তা কর্মকর্তা জানান।

ভারতের ২০০০ রুপির নোটে সামনে ১৩টি এবং পেছনে ৪টিসহ মোট ১৭টি নিরাপত্তা ব্যবস্থা বসানো রয়েছে। এর মধ্যে সামনের দু’টো এবং পেছনে চারটি নিরাপত্তা ব্যবস্থা দৃষ্টি প্রতিবন্ধীদের সহায়তা করার জন্য রাখা হয়েছে। ২০০০ রুপির জাল নোটে এ নিরাপত্তা ব্যবস্থার অর্ধেকের বেশি প্রায় নিখুঁত ভাবে নকল করা হয়েছে।

মাত্র তিন মাস হলো ভারতীয় নতুন ২০০০ রুপির নোট বাজারে ছাড়া হয়েছে। আর এ অল্প সময়ের মধ্যেই এ নিরাপত্তা ব্যবস্থা নকল করার দক্ষতা দেখিয়েছে জাল নোটের কারবারীরা। ভারতীয় সংবাদ মাধ্যমগুলো বলছে, মুদ্রা জাল করার প্রযুক্তির দিনে দিনে উন্নতি ঘটছে এতে মারাত্মক বিপদের ঘণ্টা ধ্বনি শুনতে পাচ্ছে দেশটির গোয়েন্দা এবং নিরাপত্তা সংস্থাগুলো।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য