Death মৃত্যুরাজিবপুরে এক স্কুল শিক্ষককে অপমান করায়,বাবা তার বিচার দিতে গিয়ে পুনরায় ওই শিক্ষককে মারপিট করায় অপমান সহ্য করতে না পেরে বাবা হার্টএটার্ক করে মারা যান। ঘটনাটি ঘটেছে, মঙ্গলবার (১২জুলাই)সন্ধ্যার দিকে রাজিবপুর উপজেলার চরনেওয়াজি উচ্চ বিদ্যালয়ে।

এলাকাবাসী ও বিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ মারফত জানা গেছে,মঙ্গলবার বিদ্যালয়ের অর্ধ-বার্ষিক পরীক্ষায় কিছু বখাটে ছাত্রদের পরীক্ষা নেয়নি প্রধান শিক্ষক । পরীক্ষায় বঞ্চিত কয়েক জন স্থানীয় ছাত্রলীগ নেতাকে বিষয়টি জানান।  তাদের  কথা শুনে ছাত্রলীগ নেতা সুজন(২০)বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক শফিউল আলমকে পরীক্ষা নিতে বলেন। কিন্তু প্রধানশিক্ষক তাকেও বারন করলে সুজন তাকে এবং আরও কয়েক শিক্ষককে লাঞ্চিত করে।

বিষয়টি নিয়ে মামলা হবে ভেবে ছেলের বাবা মেহের আলী ও চাচা তাহের আলী  প্রধান শিক্ষক এর নিকট ক্ষমা চাওয়ার জন্য স্কুলে হাজির হন। এক পর্যায়ে সুজনের বাবা ও চাচা প্রধান শিক্ষকের নিকট পা ধরে মাফ নিতে বলেন সুজনকে। সুজন যথারীতি ক্ষমা চাওয়ার পরিবর্তে  পাশে থাকা চেয়ার নিয়ে পুনরায় প্রধান শিক্ষককে মারপিট করে।

এ দৃশ্য দেখে পাশে থাকা বাবা মেহের আলী (৬০) অপমান সহ্য করতে না পেরে ঘটনাস্থলেই মারা যান। আর চাচা তাহের আলী অসুস্থ হয়ে রাজিবপুর মেডিকেলে ভর্তি হন। তবে এ নিয়ে কোন প্রকার মামলা-মোকদ্দমা হয়নি।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য