চিলাহাটির রাস্তায় লাইসেন্স বিহীন মটর সাইকেল উধাও ভটভটি বহাল তবিয়তেআবু ছাইদ, ডোমার, নীলফামারী থেকেঃ বাংলাদেশর সরকার অবৈধ যান চলাচলের উপর বহুবার ঝটিকা অভিযান চালিয়ে কিছু যানবাহন ও মোটর সাইকেলমালিকের বিরুদ্ধে মামলা হলেও আদালত থেকে জরিমানা দিয়ে সেই যানবাহন ও মোটর সাইকেলের মালিকরা লাইসেন্স না করে পুরায় সেই গাড়িগুলো রাস্তায় নামিয়ে দাপটের সঙ্গে চলাচল করছে। অপরদিকে প্রশাসনের কর্মকর্তারা অবৈধ যানবাহন ঠেকাতে গিয়ে ডোমার উপজেলার প্রতিটি হাট বাজারের প্রধান প্রধান রাস্তা গুলোতে অবৈধ যানবাহন নছিমন, করিমন ও ভটভটি আকষ্মিক ভাবে রাস্তায় চলাচল বৃদ্ধি পেয়েছে।

জানা গেছে সারা দেশসহ নীলফামারী জেলার ডোমার উপজেলার পুলিশ প্রশাসন কোনপ্রকার নির্দিষ্ট স্থান ও সময় ছাড়াই বিভিন্ন এলাকায় যানবাহন ও মোটর সাইকেল পাকরাও অভিযান চালিয়ে যাচ্ছে। সেই সুযোগে সরকারের নিষিদ্ধ অবৈধ যানবাহন নছিমন, করিমন ও ভটভটির ব্যাপারে প্রশাসনের কোন দৃষ্টি নেই। তারা তাদের ইচ্ছামত ব্যবসা চালিয়ে যাচ্ছে। বিভিন্ন সূত্রে জানা গেছে, ডোমার উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় যে সমস্ত লাইসেন্ম বিহীন মোটর সাইকেল রয়েছে সেই মালিকগণ বর্তমানে সরকারের লাইসেন্স ফি ফাকি দেয়ার জন্য অনেকেই তাদের ব্যবহারকৃত গাড়িটি তুলে রেখেছে।

পুলিশ প্রসাশনের এই অভিযান যদি অব্যহত থাকে তাহলে হয়তো সেই মোটর গাড়ির মালিকগণ বাদ্ধ হবে লাইসেন্স করতে। একই দেশে দুই আইন থাকায় অনেকে বিরুপ মন্তব্য প্রদান করে পুলিশ প্রসাশনের বিরুদ্ধে। যেখানে অবৈধ যানবাহন চলাচালের উপর নিষেদ্ধাজ্ঞা রয়েছে সেখানে কি করে প্রশাসনের ছত্রছায়া স্যালো মেশিন দিয়ে যানবাহন গুলো রাস্তায় চলে। এব্যাপারে উর্ধতন কর্তৃপক্ষের সুদৃষ্টি দেয়া একান্ত প্রয়োজন।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য