অপেক্ষায় ভাবনাএ সময়ের দর্শকপ্রিয় মডেল ও অভিনেত্রী ভাবনা। বিজ্ঞাপন, নাটক, টেলিছবি ও মেগা সিরিয়ালে দক্ষতার সঙ্গে অভিনয়ের মাধ্যমে নিজের প্রতিভার জানান এরই মধ্যে দিয়েছেন তিনি। পারফরম্যান্স ও গ্ল্যামারের কল্যাণে স্বল্পসময়ে ভাবনা দর্শকের মনে জায়গা করে নিয়েছেন। টিভিপর্দার ভুবনে নিজেকে মেলে ধরার পর এখন চিত্রনায়িকার তকমাজুড়ে রুপালি জগতের বাসিন্দা হয়েছেন তিনি।

কিছুদিন আগেই অনিমেষ আইচের পরিচালনায় ‘ভয়ংকর সুন্দর’ ছবির কাজ শেষ করেছেন ভাবনা। এটি ভাবনার প্রথম চলচ্চিত্র। এতে তার বিপরীতে রয়েছেন কলকাতার জনপ্রিয় অভিনেতা পরমব্রত চট্টপাধ্যায়। এ ছবিতে ভাবনা ‘নয়নতারা’ চরিত্রে অভিনয় করেছেন। টিভি পর্দা থেকে চলচ্চিত্রে এসেছেন। আর কিছুদিন পরই রুপালি পর্দায় দেখা মিলবে ভাবনার। সে অপেক্ষাতেই রয়েছেন তিনি। নিজেকে নতুনরূপে পরিচয় করাতে চান ভাবনা।

তবে টিভি পর্দা কি চলচ্চিত্রের যে কোনো মাধ্যমে নিজেকে অভিনেত্রী হিসেবেই দেখতে স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করেন তিনি। এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, অভিনয়ের মাধ্যমেই আমি মানুষের হৃদয়ে আসন করে নিতে চাই। সবার হাসি-কান্নার সঙ্গী হতে চাই। এরই মধ্যে চলচ্চিত্র জগতে পথচলা শুরু করেছি। এটি আমার ক্যারিয়ারের প্রথম চলচ্চিত্র। আর সেটাও কলকাতার জনপ্রিয় অভিনেতা পরমব্রতর সঙ্গে জুটি বেঁধে। পরিচালনা করছেন আমার পছন্দের নির্মাতা অনিমেষ আইচ। আমি নিজের শতভাগ উজাড় করেই এখানে কাজ করেছি।

এখন অপেক্ষায় রয়েছি কবে এটি প্রেক্ষাগৃহে আসবে তার। পরমব্রতের সঙ্গে অভিনয়ের অভিজ্ঞতা প্রসঙ্গে ভাবনা বলেন, আমি অনেক আগে থেকেই তার দারুণ ভক্ত। তিনি অনেক বড় মাপের একজন অভিনেতা। তার অভিনয়-প্রতিভা নিয়ে বলার সাহস আমার নেই। শুধু বলতে চাই, তিনি অনেক হেল্পফুল। ১৯৯৬ সালে বিটিভিতে ‘নৃত্যের তালে তালে’ অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণের মধ্য দিয়ে টিভি পর্দায় পথচলা শুরু করেন ভাবনা। টিভি অনুষ্ঠান ও স্টেজ শোতে সমানতালে অংশ নিয়েই শৈশবের গন্ডি পার করেন।

এরপর বড় হয়ে মাহফুজ আহমেদের পরিচালনায় জনপ্রিয় ধারাবাহিক নাটক ‘আমাদের নুরুল হুদা’য় অভিনয়ের মাধ্যমে অভিনেত্রী হিসেবে আত্মপ্রকাশ করেন। এরপর একে একে অনেক ধারাবাহিক ও খ-নাটকে কাজ করেন। বর্তমানে বড় পর্দায় অভিষেকের অপেক্ষায় ছোট পর্দার কাজ করছেন না ভাবনা। আগে এ ছবিটির ফলাফল দেখতে চান তিনি। তার পরই পরবর্তী পদক্ষেপ নেবেন এ গ্ল্যামারাস অভিনেত্রী।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য