Vrammoman Adalotআরিফ উদ্দিন, গাইবান্ধা থেকেঃ গাইবান্ধার পলাশবাড়ীতে থানা পুলিশ পৃথক অভিযানে ৫ গাঁজা সেবী ও পঁচা ডিম সাপ্লাইয়ের অপরাধে ৩জনসহ মোট ৮জনের ভ্রাম্যমান আদালতে ৩২ হাজার টাকা জরিমানা প্রদান করা হয়েছে। থানা সূত্রে জানা যায়, থানার এসআই নাজমুল হক-২ নেতৃত্বে সঙ্গীয় ফোর্সসহ অভিযান চালিয়ে শনিবার রাতে উপজেলা সদরের হরিণমারী গ্রামে গাঁজা সেবন কালে ৫জনকে আটক করে।

অপর এক অভিযানে থানার এসআই নুর মোহাম্মদ আরিফের নেতৃত্বে রোববার সদরের কালীবাড়ী বাজারে সজিব বেকারীর কারিগর এবং ৪৬’শ ২০ পিচ পঁচা ডিম বহনকারী গাড়ীর চালক ও হেলপারসহ ৩জনকে আটক করে। আটককৃতরা হলেন, উপজেলার সদরের হরিণমারী গ্রামের শহিদুল ইসলামের ছেলে সোহেল মিয়া (১৮), একই গ্রামের ফুল মিয়া ছেলে লাভলু (১৮), আমিনুল ইসলাম দুদু’র ছেলে পলাশ (২২), শহিদুল ইসলামের ছেলে জুয়েল (২২) ও নুনিয়াগাড়ী গ্রামের বেলাল মিয়ার ছেলে মোহায়মেনুল ওরফে মিনুকে (১৯)  গাঁজা সেবন কালে হাতে-নাতে আটক করা হয়।

পরে আটককৃতদের উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট মোহাম্মদ তোফাজ্জল হোসেনের দপ্তরে হাজির করা হয়। এসময় ভ্রাম্যমান আদালতের বিজ্ঞ বিচারক তাদের প্রত্যেকের ২ হাজার করে মোট ১০ হাজার টাকা জরিমানা করে ছেড়ে দেন। অপরদিকে, সদরের সজিব বেকারীতে অভিযান চালিয়ে ৪৬’শ ২০ পিচ পঁচা ডিমসহ বেকারীর কারিগর গাইবান্ধা সদরের আবু বক্কর সিদ্দিকের ছেলে আব্দুস সালাম (৩৫), পঁচা ডিম বহনকারী গাড়ীর চালক বগুড়ার সোনাতলা উপজেলার মহেশপাড়া গ্রামের হামিদুল ইসলামের ছেলে রঞ্জু মিয়া (৩১) ও হেলপার বগুড়ার শেরপুর উপজেলার মধ্য দুর্গাপুর গ্রামের বেলাল হোসেনের ছেলে শাহিদ মিয়াকে (২৭) আটক করা হয়।

পরে আটককৃতদের উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) ও এক্সিকিউটিভ ম্যাজিষ্ট্রেট মোঃ তৌহিদুর রহমানের দপ্তরে হাজির করা হলে সজিব বেকারী কারিগরের ২০ হাজার, গাড়ীর চালকের ১ হাজার ও হেলপারের ১ হাজার টাকাসহ মোট ২২ হাজার টাকা জরিমানা করে ছেড়ে দেন। শেষে জব্দকৃত ৪৬’শ ২০ পিচ পঁচা ডিম গুলো ম্যাজিষ্ট্রেটের উপস্থিতিতে মাটিতে পুড়ে ফেলা হয়।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য