05_peruquakপেরুর উত্তরাঞ্চলে শনিবার এক শক্তিশালী ভূমিকম্প হয়েছে। এ ঘটনায় জনমনে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে এবং একটি গির্জা ক্ষতিগ্রস্ত হয়। তবে এতে হতাহতের কোন খবর পাওয়া যায়নি। মার্কিন ভূতাত্ত্বিক জরিপ সংস্থা (ইউএসজিএস) জানায়, বিকেলের দিকে গ্রিনিচ মান সময় ২৩৫১ টায় পেরুর উপকূলীয় শহর সেচুরা থেকে ৬ কিলোমিটার (৩ মাইল) পশ্চিমে প্রশান্ত মহাসগরের উপকূলে ৬.৩ মাত্রার এ ভূমিকম্প হয়েছে। ইউএসজিএস আরো জানায়, ভূমিকম্পটি ৯ কিলোমিটার গভিড়ে আঘাত হানে। অঞ্চলটি ইকুয়েডোরের পেরু সীমান্তের কাছে অবস্থিত।
পেরুর ভূ-পদার্থবিদ্যা প্রতিষ্ঠান জানায়, স্থানীয় সময় সন্ধ্যা ৬টা ৫১ মিনিটে ভূমিকম্পটি হয়। এর উৎপত্তিস্থল ছিল সিচুরা থেকে ৩৮ কিলোমিটার পশ্চিমে ২৫ কিলোমিটার গভিড়ে। পেরুর নৌবাহিনী জানায়, তারা সুনামি সতর্কতা সংকেত জারি করেনি। স্থানীয় বাসিন্দাদের শান্ত থাকার আহ্বান জানানো হয়েছে। বেসামরিক প্রতিরক্ষা কর্মকর্তারা জানান, ভূমিকম্পের সময় সিচুরার বাসিন্দারা বাড়িথেকে দৌড়ে রাস্তায় নেমে পড়ে। কিছু সময়ের জন্য টেলিফোন সেবা বিঘিœত হয়। তবে তাৎক্ষণিকভাবে হতাহতের কোন খবর পাওয়া যায়নি। পাশের পর্বতে কোন ভূমিধসের খবর পাওয়া যায়নি উল্লেখ করে আঞ্চলিক পুলিশ জানায়, সেচুরা ক্যাথেড্রেলের দুটি লম্বা বেল টাওয়ারের একটি ধসে পড়েছে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য