মসুল মুক্ত করার লড়াইয়ে ইরাক ঐক্যবদ্ধআন্তর্জাতিক ডেস্কঃ ইরাকের প্রেসিডেন্ট ফুয়াদ মাসুম বলেছেন, উত্তরাঞ্চলীয় মসুল শহর মুক্ত করার লড়াইয়ে পুরো ইরাক ঐক্যবদ্ধ রয়েছে। এ লড়াইয়ে দেশের পপুলার মোবিলাইজেশন ফোর্সেস বা হাশ্‌দ আশ-শাবি এবং কুর্দি পেশমার্গা যোদ্ধারা অবশ্যই অংশ নেবে।

পপুলার মোবিলাইজেশন ফোর্সেস সাম্প্রদায়িক এজেন্ডা বাস্তবায়ন করছে বলে আঞ্চলিক কয়েকটি দেশ বিশেষ করে সৌদি আরব ও সংযুক্ত আরব আমিরাত যে অভিযোগ করেছেন তা নাকচ করে দেন প্রেসিডেন্ট ফুয়াদ মাসুম। তিনি বলেন, এসব দেশের অভিযোগ ভিত্তিহীন ও রাজনৈতিক উদ্দেশপ্রণোদিত। একইসঙ্গে তিনি স্বেচ্ছাসেবী এ বাহিনীর বিভিন্ন যুদ্ধে অংশ নেয়ার প্রশংসা করেন।

২০১৪ সালের জুন মাসে ইরাকের প্রভাবশালী আলেম আয়াতুল্লাহ আলী সিস্তানি ফতোয়া জারি করে বলেছিলেন, দেশের জনগণকে শহর রক্ষার যুদ্ধে নামতে হবে। এ ফতোয়ার পেই ইরাক সরকার ৪০টি স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন নিয়ে পপুলার মোবিলাইজেশন ফোর্স গঠন করে। এর পাঁচদিন আগে উগ্র সন্ত্রাসী গোষ্ঠী আইএসআইএল বা দায়েশ ইরাকের দ্বিতীয় বৃহত্তম শহর মসুল দখল করে নেয়।

কিছুদিন আগে ইরাক সরকার মসুল মুক্ত করার ঘোষণা দিয়েছে এবং এরইমধ্যে ওই শহর মুক্ত করার জন্য হাজার হাজার সেনা কৌশলগত অবস্থান গ্রহণ করেছে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য